রবিবার ২৯ নবেম্বর ২০২০
Online Edition

নিজের জীবনী নিয়ে বাংলা ভাষায় রচিত বইয়ের খবর শুনে অভিভূত এরদোগান

 

৭ মার্চ, ইন্টারনেট : তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তৈয়ব এরদোগান নিজের জীবনী নিয়ে বাংলা ভাষায় বই রচিত হয়েছে শুনে অভিভূত হয়ে পড়েন।

 তিনি আবেগে বুকে জড়িয়ে ধরেন বইটির লেখক হাফিজুর রহমানকে। শত সহস্র মাইল দূরের একটি ছোট্ট দেশের কোটি কোটি মানুষের ভালবাসার কথা শুনে এই পরাক্রমশালী বিশ্ব নেতা আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন। এসময় তিনি বাংলাদেশের মানুষের আবেগ এর প্রতি শ্রদ্ধা আর নিজের অন্তর থেকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। বাংলাদেশের মানুষের সকল বিপদে পাশে থাকবেন বলেও তিনি তার প্রতিশ্রুতির কথা পুনর্ব্যক্ত করেন। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগানের জীবনী নিয়ে বাংলা ভাষায় লিখিত বই, ‘এরদোগান: দ্যা চেঞ্জ মেকার’ এরদোগানের হাতে তুলে দেন বইটির লেখক হাফিজুর রহমান।

একে পার্টির পার্লামেন্টারী মিটিংয়ের বিশেষ সেশনে বই তুলে দেওয়ার সময় তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী বিনালী ইলদিরিম, মন্ত্রী পরিষদের সদস্যবৃন্দ, একে পার্টির সিনিয়র নেতৃবৃন্দ এবং সকল এমপিরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন। লেখক প্রেসিডেন্টকে বইটিতে স্থান পাওয়া বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন এবং বইটি বাংলাদেশী পাঠকদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে বলে উল্লেখ করেন। পাশাপাশি এরদোগানের প্রতি বাংলাদেশীদের আবেগ ও ভালোবাসার কথা উল্লেখ করেন।

 প্রেসিডেন্ট এরদোগান বইটি লিখার জন্য লেখককে ধন্যবাদ জানান এবং তার প্রতি এ ধরনের ভালোবাসায় জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

বই তুলে দেওয়ার সময় লেখকের সাথে তুরস্কের অন্যতম সিভিল সোসাইটি সংগঠন ‘ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি’ এর চেয়ারম্যান ও সাবেক এমপি মাহমুদ গুকসু, সংসদ সদস্যবৃন্দ, ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি আঙ্কারা শাখার সভাপতি ও কার্যকরী কমিটির সদস্য প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, হাফিজুর রহমান তুরস্কের গাজী ইউনির্ভাসিটিতে রাজনীতি ও লোক প্রশাসন বিভাগে পিএইচডি করছেন এবং ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি আনকারা শাখার ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টস কমিশনের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ