রবিবার ২৯ নবেম্বর ২০২০
Online Edition

পূর্ব গৌতায় যা চলছে তা সহ্য করা কঠিন-----এরদোগান

৭ মার্চ, এএফপি/আনাদোলু : সিরিয়ায় জাতিসঙ্ঘের প্রবর্তিত যুদ্ধবিরতিকে অর্থহীন বলে মন্তব্য করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান। পূর্ব গৌতাসহ সিরিয়ার বিভিন্ন অঞ্চলে বাশার সরকারের অব্যাহত বোমা হামলার পরিপ্রেক্ষিতে তিনি এ মন্তব্য করেন। তুর্কি পার্লামেন্টে এরদোগান বলেন, ‘পূর্ব গৌতায় যা চলছে তা সহ্য করা কঠিন, তারা মানবিকতার ধার ধারে না।' তিনি আরো বলেণ, ‘ যে যুদ্ধবিরতি কার্যকর হয়নি, মানুষের কাছে তার কোনো মূল্য নেই।’ গত ২৪ ফেব্রুয়ারি পূর্ব গৌতায় যে ৩০ দিনের যুদ্ধবিরতি ঘোষণা করেছিল জাতিসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ সেটিকে উদ্দেশ করে এসব কথা বলেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট। আর এটি কার্যকর না হওয়ার জন্যও তিনি জাতিসঙ্ঘকে দোষী সাব্যস্ত করেন। এ জন্য নিরাপত্তা পরিষদের পাঁচ সদস্যের কাঠামোকেও দায়ী করেন তিনি।

প্রসঙ্গত ওই যুদ্ধবিরতি ঘোষণা সত্ত্বেও বাশার বাহিনী ও তাদের মিত্র রাশিয়ার হামলায় গৌতায় ৭৫৬ জন নিহত হয়েছেন গত দুই সপ্তাহে। রাজধানী দামেস্কের নিকটবর্তী পূর্ব গৌতা এলাকাটিতে প্রায় চার লাখ লোকের বাস। ২০১৩ সাল থেকে বিদ্রোহীদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে এটি। সরকার পাঁচ বছর ধরে অবরোধ করে রাখার পর গত ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝিতে সেখানে বিমান হামলা শুরু করেছে। 

‘সিরীয় সংকট নিয়ে কথা  বলেছেন পুতিনের সঙ্গে’: সম্প্রতি সিরিয়ার পূর্ব গৌতায় যুদ্ধের কারণে মানবিক বিপর্যয় ঘটেছে। এ প্রেক্ষাপটে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান ও রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন কথা বলেছেন। মঙ্গলবার এই দুই নেতার মধ্যে ফোনালাপ হয়েছে।  জানা গেছে, পূর্ব গৌতায় বেসামরিক লোকদের জন্য ত্রাণ সহযোগিতা ও সেখানকার অধিবাসীদের দুর্ভোগ লাঘব অপরিহার্য বলে মন্তব্য করেন দুই নেতা। 

দাতব্য সংস্থা হোয়াইট হেলমেট জানিয়েছে, মঙ্গলবার সিরীয় বাহিনীর হামলায় অন্তত ১০ বেসামরিক লোক নিহত হয়েছেন। তারা জানায়, সিরীয় বাহিনী বিমান হামলার পাশাপাশি বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলটিতে স্থল অভিযানও শুরু করেছে। আসাদ বাহিনীর হামলায় আরবিনে চার, জিসরিনে তিন, আইন তারমায় দুই ও বাইত সাভায় এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

এদিকে, জাতিসংঘের মুখপাত্র স্টিফেন ডুজারিক জানান, জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্টিনিও গুয়েতেরেস পূর্ব গৌতায় অব্যাহত হামলার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ