সোমবার ১০ আগস্ট ২০২০
Online Edition

কিশোরগঞ্জে সেচ ক্যানেল সংস্কারে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ

তিস্তা বাঁধ সেচ প্রকল্পের এস সেভেনটি ক্যানেলের পানিআল পুকুর খোলাহাটি উত্তরের ভাঙ্গা ফুট ব্রিজ এলাকায় সংস্কারের ছোঁয়া না লাগার দৃশ্য

কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী) সংবাদদাতা : নীলফামারীর কিশোরগঞ্জে চলতি ইরি বোরো মওসুমে তিস্তা বাঁধ সেচ প্রকল্পের এস সেভেটি ক্যানেল সংস্কারে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। মেসার্স হারুন এন্টার প্রাইজ ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের নামে টেন্ডার বরাদ্দ নিয়ে সংশ্লিষ্ট কাজের এসও নিজেই লেবার দিয়ে নামমাত্র কাজ করে সেচকার্য চালু করেছে। ফলে গত বছরের ন্যায় যেকোন সময় ক্যনেলটির বাঁধ ভেঙে বিস্তৃর্ণ এলাকা প্লাবিত হওয়ার আশংকার সৃষ্টি হয়েছে। 

জানা যায়, তিস্তা বাঁধ সেচ প্রকল্পের প্রধান ক্যানেলের কিশোরগঞ্জ উপজেলার জুড়াবান্দা সুইচগেট থেকে টারসিয়ারী এস সেভেনটি ক্যানেল নিতাই ইউনিয়নের বেলতলী ব্রিজ হয়ে সৈয়দপুর উপজেলায় ধাবিত হয়েছে। ওই টারসিয়ারী ক্যানেলের চেইনএজ ৫৫০২ থেকে ৬৫০০ চেইনএজ চলতি মওসুমে সংস্কারের জন্য টেন্ডারের মাধ্যমে ৫৬৪৩০০ টাকার কাজ পায় মেসার্স হারুন এন্টার প্রাইজ নামে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান। কিন্তু সংশ্লিষ্ট কাজের এসও সৈয়দপুর পাওবো’র প্রকৌশলী মিজান ঠিকাদারের সাথে গোপনে টেন্ডারের টাকার আতাত করে নিজে কাজ সম্পন্ন করার দায়িত্ব নেয়। ওই প্রকৌশলী বড়ভিটা এলাকার ফজু নামে এক লেবার সর্দারকে ঠিকাদার পরিচয় দিয়ে নামমাত্র কাজ করে ক্যানেলের সংস্কার কাজ সম্পন্ন হয়েছে মর্মে অফিসে প্রত্যয়ন দেয়। 

বৃহস্পবিার সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ষ্টিমেট অনুযায়ী ক্যানেলের দুই বাঁধে অসংখ্য ভাঙা গর্তে ও ভাঙ্গা স্থানে মাটি ভরাট না করে খোলাহাটি পাড়া সংলগ্ন স্থানে ১শ’গজ ৬ ইঞ্চি বেড কাটিং করেছে, দুই বাঁধে ঘাঁস লাগানোর কোন চিহ্ন চোখে পড়েিেন। নিতাই খোলাহাটি এলাকার আবুল কালাম, এয়াকুব আলী ও মজিবর রহমান জানান, দূর থেকে মাঠি এনে ক্যানেলের দুই বাঁধের ভাঙা-ফুঁটো মেরামত করার নিয়ম থাকলেও প্রকৌশলী মিজান লেবার সর্দার ফজুকে দিয়ে গুটি কয়েক লেবার এনে ক্যানেলের বেড থেকে মাঠি তুলে দুই বাঁধে ছড়িয়ে দিয়েছে। বাঁধের ভাঙা গর্তগুলো ভরাট না করে ক্যানেলে পানি ছেড়েছে। ফলে গত বছরের ন্যায় এবারেও ক্যানেলের বাঁধ ভেঙে বিস্তৃর্ণ এলকার ফসল বিনষ্ট হতে পারে। লেবার সর্দার ফজু বলেন ওই ক্যানেল সংস্কারের জন্য এসও মিজান আমার সাথে চুক্তিকৃত টাকার এখনো ১০হাজার টাকা দেয় নাই। এব্যাপারে সৈয়দপুর পাওবো’র প্রকৌশলী ওই ক্যানেল সংস্কার কাজের সংশ্লিষ্ট এসও মিজানের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি এস সেভেনটি ক্যানেলের সংস্কার কাজ সম্পন্ন হয়েছে স্বীকার করেন এবং এবিষয়ে কোন তথ্য জানেন না বলে কথা বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ