বুধবার ১২ আগস্ট ২০২০
Online Edition

দৌলতপুরে শিক্ষিকা মমতা হেনার নিয়োগ বাতিল করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর

দৌলতপুর (কুষ্টিয়া) সংবাদদাতা : কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে  চকদৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা মমতা হেনার নিয়োগ বাতিল করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর। ৩৮.০১.০০০০. ১৪৩.১১.০২৬.১৭-কুষ্টিয়া ৩০/০১ স্মারকে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর থেকে নিয়োগ বাতিল পত্র পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের যুগ্ম-সচিব বিজয় ভূষণ পাল স্বাক্ষরিত নিয়োগ বাতিল পত্রে উল্লেখ করা হয়েছে ‘সহকারী শিক্ষক নিয়োগ ২০০৯’ এ কুষ্টিয়া জেলার দৌলতপুর উপজেলার চকদৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মোছা. মমতা হেনা যার রোল নং ৮৮৩৪ ভুয়া পোষ্য সদস্যের মাধ্যমে পোষ্য কোটায় নিয়োগপ্রাপ্ত হন। এ বিষয়ে উত্থাপিত অভিযোগ তদন্তে প্রমাণিত হয়। এমতাবস্থায় প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের ১৪ মে ২০০৯ তারিখের প্রাশিঅ/ নিয়োগ/ ০৪/ স:শি:নি:/০৯/ ৬৮৪ নং স্মারকে জারীকৃত নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির ১৩ নং অনুচ্ছেদের শর্তানুযায়ী মোছা. মমতা হেনা, পিতা-মো. আবু হানিফ, মাতা-মোছা. ছামসুন্নাহার, গ্রাম ও পো. মথুরাপুর, উপজেলা-দৌলতপুর, জেলা-কুষ্টিয়ার নিয়োগ এতদ্বারা বাতিল করা হলো। এ বিষয়ে বিধি মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কুষ্টিয়া জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে নির্দেশনা প্রদান করা হলো।
এদিকে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর থেকে মমতা হেনার নিয়োগ বাতিল পত্র প্রাপ্তির পর কুষ্টিয়া জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আনন্দ কিশোর সাহা জেপ্রামিঅ/কুষ/২৫৪ স্মারকে স্বাক্ষরিত পত্রে দৌলতপুর প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কার্যাদেশ প্রেরণ করেছেন। এ বিষয়ে গতকাল শনিবার জানতে চাওয়া হয়ে দৌলতপুর প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার জয়নাল আবেদীন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, চকদৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা মমতা হেনার নিয়োগ বাতিল পত্র প্রাপ্তির পর সে অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ