রবিবার ০৯ আগস্ট ২০২০
Online Edition

কাশ্মীরে ভারতীয় সেনাবাহিনীর গুলীতে নিহত ২ ॥ বন্ধের ডাক

২৮ জানুয়ারি, এনডিটিভি, ফার্স্ট পোস্ট : ভারতের জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যে পাথর নিক্ষেপরত উত্তেজিত জনতাকে লক্ষ্য করে সেনাবাহিনীর ছোড়া গুলীতে দুই বেসামরিক নিহত হয়েছেন।

গত শনিবার সন্ধ্যায় রাজ্যটির শোপিয়ান জেলায় এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই দুই বেসামরিক হত্যার প্রতিবাদে রোববার কাশ্মীর উপত্যকাজুড়ে ‘বন্ধ’ এর ডাক দিয়েছে ‘স্বাধীনতাকামীরা’।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে েেয়ত পারে আশঙ্কায় কাশ্মীর উপত্যকার কয়েকটি অংশে মোবাইল ইন্টারনেট সার্ভিস স্থগিত রেখেছে কর্তৃপক্ষ। এসব এলাকার মধ্যে পুলওয়ামা, অনন্তনাগ, কুলগাম ও শোপিয়ান অন্যতম।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর দাবি, তাদের একটি বহর ‘বিনা উসকানিতে উত্তেজিত জনতার ব্যাপক পাথর নিক্ষেপের মুখে পড়ার পর আত্মরক্ষার্থে’ গুলী ছুড়েছে।

ঘটনার সঙ্গে জড়িত সেনাবাহিনীর ইউনিটটির বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছে কাশ্মীর পুলিশ। ঘটনাটি তদন্ত করে দেখার নির্দেশ দিয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। তিনি ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সিথারামনের সঙ্গেও কথা বলেছেন।

ঘটনার বিষয়ে বিস্তারিত প্রতিবেদন চেয়ে পাঠিয়েছেন মন্ত্রী সিথারামন।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাজ্যটির রাজধানী শ্রীনগরের কয়েকটি অংশে রোববার কার্ফু জারি করা হয়েছে। উপত্যকার অধিকাংশ এলাকার দোকানপাট ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ আছে। বন্ধের কারণে গণপরিবহণগুলোও রাস্তায় নামেনি। বারামুল্লা ও বানিহালের মধ্যে চলাচলরত ট্রেন সার্ভিস বন্ধ রাখা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, শোপিয়ানের গানোভপোরা গ্রাম ভিতর দিয়ে সেনাবাহিনীর একটি বহর য়াওয়ার সময় প্রতিবাদকারীরা পাথর নিক্ষেপ শুরু করে। এ সময় সেনাবাহিনীর গুলিতে ২০ বছর বয়সী জাভেদ আহমদ ভাট ও ২৪ বছর বয়সী সুহাইল জাভিদ লোন নিহত হন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ