শুক্রবার ২৯ মে ২০২০
Online Edition

গ্রিনরোডে অবৈধ বিলবোর্ড উচ্ছেদ লক্ষাধিক টাকা জরিমানা

 

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর গ্রিনরোড এলাকায় অবৈধ বিলবোর্ড, ব্যানার-ফ্যাস্টুন উচ্ছেদ করেছে নগর কর্তৃপক্ষ, অভিযানে বেশ কয়েকটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে লক্ষাধিক টাকা জরিমানাও করা হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে ওই এলাকায় উচ্ছেদ অভিযান শুরু করেন উত্তর সিটি কর্পোরেশনের অঞ্চল-৫ এর নির্বাহী কর্মকর্তা অজিউর রহমান। 

গত মঙ্গলবার একই এলাকায় অবৈধ ও অননুমোদিত বিলবোর্ড, পোস্টার, ফেস্টুন ও ওভারহেড সাইনবোর্ড অপসারণ না করায় ছয়টি কোচিং সেন্টারের ট্রেড লাইসেন্স বাতিল করে নগর কর্তৃপক্ষ। কোচিং সেন্টারগুলো অভিযানের অন্যতম লক্ষ্য থাকলেও এদিন প্রতিষ্ঠানগুলোর পরিচালকরা নিজেরাই তালা মেরে চলে যান।

অভিযানে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের ক্ষমতায় থাকা অজিউর রহমান বলেন, “এই এলাকায় লাইসেন্স বাতিল হওয়া কোচিং সেন্টারগুলো আজ প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখেছে। তারা নতুন লাইসেন্স না নিয়ে যদি প্রতিষ্ঠান খোলে তাহলে অবশ্যই আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।”

গতকাল সকালে গ্রিনরোডের গ্রিন সুপার মার্কেটে অভিযান চলাকালে তিনি বলেন, “ব্যবসায়ীরা একাধিক সাইনবোর্ড বসিয়ে পরিবেশ খারাপ করেন। এটি ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়ের জন্য সমস্যা। আমরা যেকোনো একটি সাইনবোর্ড ব্যবহারের অনুমোদন দিয়ে থাকি। কিন্তু তারা বিষয়টি বুঝতে চান না।”

এই মার্কেট থেকে লক্ষাধিক টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, “অন্যান্য ব্যবসায়ীদের আমরা একই বার্তা দিতে চাই। নিজ উদ্যোগে সংশোধন না হলে অবশ্যই অভিযানের মুখে পড়তে হবে।”

গ্রিন সুপার মার্কেটে ২০ হাজার টাকা জরিমান গুণে ক্ষুব্ধ ১১ নম্বর দোকানের মালিক সাইফুল ইসলাম বলেন, “আমরা বুঝতেই পারিনি কি কারণে আমাদের জরিমানা করা হচ্ছে। কেন অতিরিক্ত সাইনবোর্ড ব্যবহার করতে পারব না সেই বিষয়ে কোনো নোটিস দেয়া হয়নি।”

ওই মার্কেটে অভিযানের পর অনন্দ সিনেমা হলের উল্টো দিকে কোচিং সেন্টার এবং অন্যান্য দোকানের অবৈধ ও অতিরিক্ত সাইনবোর্ডও অপসারণ করে কর্তৃপক্ষ। এই সময় ফুটপাতে বসা হকাররা নিজেদের মালামাল নিয়ে সরে পড়েন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ