সোমবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

পলাশে স্বেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে খাল খনন

 

পলাশ (নরসিংদী) সংবাদদাতা মোবারক হোসেন : নরসিংদীর পলাশ উপজেলার আশুগঞ্জ এগ্রো ইরিগ্রেশন প্রকল্পের আওতাধীন খাল নির্মান করা হয় সেই ১৯৯৭ সালে, পরবর্তীতে খালের নির্মাণ কাজ সামনের দিগে এগিয়ে গেলেও পিছনের অর্থাত পূর্বের নির্মিত ২০-২১ বছর আগের ১০-১৫ কি.মি লম্বা খাল বাহিরের মাটি এসে ভরাট হয়ে যাওয়ায় বিল-বিলালের নিচু জমি থেকে  খাল উচু হয়ে যাওয়ার ফলে জমির পানি নিষ্কাশন হয় না। ফলে প্রতি বছর হাজার হাজার কৃষক তাদের জমিতে বোর অর্থাত ইরি ফসল চাষ করতে পারছে না। এ কারনে দেশের খাদ্য উৎপাদনে মারাতক ক্ষতি সাধিত হচ্ছে। এগ্রো ইরিগ্রেশন প্রকল্প ও সরকারী ভাবে খাল খননে কোন প্রকার নজর দারী না থাকার ফলে উপজেলার ঘোড়াশাল পৌর এলাকার নতুন পাড়া গ্রামের কয়েক জন কৃষক মোঃ আসাদ মিয়া, হুমায়ন মিয়া, মিনছির আলী, মোঃ সেবুল, দোলন ও ইব্রাহিম তাদের নিজ উদ্দ্যেগে স্বেচ্ছা শ্রমের ভিত্তিতে খাল খনন শুরু করেছে। তাদের উদ্দেশ্য আগামী বোর মৌসুমে তারা সহ এলাকার অন্যান্য কৃষকরাও জাতে ইরি ধান ফসল উৎপাদন করতে পারে। তা হলে দেশ কছিুটা হলেও লাভবান এবং তাদের প্রচেষ্টা কিছুটা হলেও স্বার্থক হবে। আর কৃষকেরা দারিদ্র্য ঘুচাতে পারবে বলে তাদের আশা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ