শুক্রবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

সিংড়ায় সোনালী ব্যাংক থেকে নাটকীয় কায়দায় গ্রাহকের টাকা চুরি

সিংড়া (নাটোর) সংবাদদাতা: নাটোরের সিংড়ায় অভিনব কায়দায় নাটকীয় ভাবে ব্যাংক থেকে শিক্ষকের ৮৪ হাজার ১শ টাকা চুরির ঘটনা ঘটেছে। সোমবার দুপুরে সোনালী ব্যাংকের সিংড়া শাখায় এ ঘটনা ঘটে। ব্যাংকে সিসিটিভি ক্যামেরা না থাকায় কর্তৃপক্ষকে দোষারোপ করছেন গ্রাহকরা।
বিয়াশ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জামাল উদ্দিন বলেন, এসএসসি পরীক্ষার ফরম ফিলাপের টাকা ডিডি করতে ব্যাংকে আসি দাঁড়িয়ে টাকা জমা দেওয়ার এক পর্যায়ে পেছন থেকে অপরিচিত এক লোক ইশারা করে বলে আপনার মনে হয় কিছু টাকা মেঝেতে পড়ে গেছে। এ সময় ডিডির ৮৪হাজার ১শ টাকা কাউন্টারের সামনে রেখে নিচে তাকাতেই ওই লোক কাউন্টারের সামনে থেকে টাকা গুলো নিয়ে পালিয়ে যায়।
ব্যাংকে সেবা নিতে আসা হাসান ইমাম নামে এক গ্রাহক বলেন, যখন ঘটনাটি ঘটে তখন আমি ব্যাংকে ছিলাম। লোকটি (জামাল উদ্দিন) যখন টাকা জমা দিতে আসেন তখন ক্যাশ কাউন্টারে কোন কর্মকর্তা ছিলো না, সিকিউরিটি গার্ডও ছিল ওয়াশরুমে। অপরিচিত লোকটি (টাকা চোর) মেঝেতে কিছু টাকা (১০০,৫০,২০,১০) ফেলে কৌশলে চুরির ঘটনাটি ঘটিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়।
ব্যাংকে সেবা নিতে আসা অন্য গ্রাহকরা বলেন, ব্যাংক কর্তৃপক্ষের অব্যবস্থাপনার কারণে মাঝে মধ্যেই দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে টাকা আদান-প্রদান করতে হয়। তাছাড়া সরকারি ব্যাংক হিসেকে ব্যাংক ও গ্রাহকদের নিরাপত্তার  জন্য সিসিটিভি ক্যামেরা নাই।
সোনালী ব্যাংক সিংড়া শাখার ভারপ্রাপ্ত ম্যানেজার আবুল হাসেম জানান, ব্যাংকে টাকা পয়সা আদান প্রদানের ক্ষেত্রে গ্রাহকদের সচেতন হওয়া উচিত। তাছাড়া ব্যাংক ও গ্রাহকদের নিরাপত্তায় সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপনের জন্য উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট আবেদন করা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ