রবিবার ২৯ নবেম্বর ২০২০
Online Edition

টানা বৃষ্টিতে বরেন্দ্র অঞ্চলে ফল-ফসলের ব্যাপক ক্ষতি

রাজশাহী অফিস : নিম্নচাপের প্রভাবে রাজশাহীতে দু’দিন ধরে বৃষ্টিপাত অব্যাহত রয়েছে। লাগাতার বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে নগরজীবন। তিন দিন ধরে টানা বৃষ্টিতে বরেন্দ্র অঞ্চলের ধান, টমেটো ও কলাইসহ বিভিন্ন ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। কার্তিকের শুরুতে অসময়ের এই বৃষ্টির ক্ষতিতে কৃষকেদের মধ্যে হতাশা দেখা দিয়েছে বলে জানা গেছে।
রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের শুক্রবার সকাল সোয়া ৭টা থেকে শনিবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত রাজশাহীতে ১শ' ২৩ দশমিক ৩ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। এদিকে টানা বৃষ্টিতে রাজশাহীর গ্রামাঞ্চলে এরইমধ্যে জমিতে থাকা কলা ও পেঁপে গাছ পড়ে যেতে শুরু করেছে। ক্ষতি হচ্ছে শীতকালীন আগাম সবজির। এছাড়া ঝড়ো বাতাসে জমির উঠতি আমন ধান পড়ে যাচ্ছে। চলতি মৌসুমে আমন ধানের পাশাপাশি টমেটো ও কলাই চাষে বেশ সাড়া পড়েছিল এই অঞ্চলে। গত তিনদিন ধরে মুসলধারে বৃষ্টি ও হালকা বাতাসে ধানের চারাগুলো মাটির সাথে ঢলে পড়েছে। এসময় ধান গাছ ফুলে ভরা। মাটিতে পড়ে যাওয়ার কারণে এর ফলন অর্ধেকে নেমে আসবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। অন্যদিকে টমেটো গাছের গোড়ায় পানি জমে গিয়ে টমেটো গাছ মাটিতে পড়ে গেছে। পানি জমে থাকায় টমেটো গাছের গোড়ায় পচন দেখা দিচ্ছে। আর বৃষ্টি ছাড়ার সাথে সাথে কলাই ফসলে পোকার আক্রমণ বাড়তে পারে। এ কারণে ধান, টমেটো ও কলাইয়ের ব্যাপক ক্ষতি এবং ফলন কম হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। কৃষিবিদদের ধারণা, টানা বৃষ্টিতে ধানের ২৫ থেকে ৪০ ভাগ ক্ষতি হতে পারে। টমেটো গাছের গোড়ায় পচন ধরতে পারে। তবে এখন বৃষ্টি থেমে রোদ হলে আর কীটনাশক ব্যবহার করে টমেটো ও কলাইয়ের ক্ষতি রোধ করা কিছুটা সম্ভব হলেও ধানের ক্ষতি রোধ করা সম্ভব নয়।
কুরআন শিক্ষার মধ্য দিয়ে মেধার
বিকাশে সমৃদ্ধ হতে হবে
-রাজশাহী সিটি মেয়র
রাজশাহীর কাশফুল কুরআন ইনস্টিটিউট নির্মিতব্য ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেছেন  রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল। এসময় তিনি কুরআন শিক্ষার মধ্য দিয়ে মেধার বিকাশ ঘটিয়ে নিজেদের সমৃদ্ধি করার উপর গুরুত্বারোপ করেন।
শুক্রবার বিকেলে মহানগরীর মহিষবাথান এলাকায় তিনি প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন। মহিষবাথান পূর্বপাড়া জামে মসজিদে এ উপলক্ষে আয়োজিত দোয়া মাহফিলে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মেয়র বলেন, কুরআন বিজ্ঞানভিত্তিক শিক্ষা। আমাদের একে গভীরভাবে ধারণ করতে হবে। পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ জাতি হিসেবে মুসলমান আজ বিশ্বে সমাদৃত। আগামীতে বিশ্বের সর্ববৃহৎ জনগোষ্ঠী হিসেবে মুসলমানরা প্রতিষ্ঠিত হবে। কুরআন শিক্ষার মধ্যে দিয়ে মেধার বিকাশ ঘটিয়ে আমাদের সমৃদ্ধ হতে হবে। কেননা মধ্যপ্রাচ্যসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এ মেধার ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। তিনি বলেন, এ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি ইতোমধ্যেই দেশে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। ভিত্তি প্রস্তর স্থাপনের মাধ্যমে এ প্রতিষ্ঠানটি নিজস্ব ভবনে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালিত করবে। এ মহানগরীতে ভাল মানের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রয়োজন রয়েছে। প্রতিযোগিতার বিশ্বে টিকে থাকতে ইংরেজি, বাংলা, আরবিসহ প্রতিটি বিষয়ে অত্যন্ত যতœশীল হতে হবে। মেধাকে শানিত করে প্রতিযোগিতায় বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যেতে হবে। কাশফুল কুরআন ইনস্টিটিউট রাজশাহীর চেয়ারম্যান এএইচএম শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্ব অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. কামরুজ্জামান। বক্তব্য দেন প্রতিষ্ঠানের ভাইস চেয়ারম্যান মওলানা আইয়ুব আলী শেখ, হাফেজ রফিকুল ইসলাম, হাফেজ মুস্তাক আহমেদ। দোয়া পরিচালনা করেন মুফতি ক্বারী আবুল কালাম আজাদ। অনুষ্ঠানে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গসহ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে মহানগরীর ২৬নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম পরিদর্শন করেছেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল। শুক্রবার সকালে মেয়র ওয়ার্ডের হজোর মোড়, কড়াইতলা, রামচন্দ্রপুর পূর্বপাড়া এলাকার রাস্তা ও ড্রেনের কাজ পরিদর্শনকালে এলাকাবাসীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন। এলাকাবাসী মেয়রকে দীর্ঘদিন পর কাছে পেয়ে আনন্দিত হন। সে সময় এলাকাবাসী তাঁদের মহল্লার ড্রেন, রাস্তা, জলবদ্ধতা, আলোকায়নসহ বিভিন্ন সমস্যার বিষয়ে মেয়রকে অবহিত করেন। মেয়র তাঁদের সমস্যাসমূহ অতি ধৈর্য্য সহকারে শোনেন এবং অতি দ্রুততম সময়ের মধ্যেই এ সকল সমস্যা সমাধানে আশ্বাস প্রদান করেন। পরিদর্শনকালে মেয়রের সঙ্গে আসলাম, বাবু, জালাল, সেন্টু, নাসির, দেলোয়ারসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ