বুধবার ৩০ নবেম্বর ২০২২
Online Edition

ঢাকা শহরের ৯০ শতাংশ লোক সরকারের বিরোধিতা করে

স্টাফ রিপোর্টার : ক্ষমতায় থেকে জনগণকে নিয়ে হেলাফেলা না করতে আওয়ামী লীগকে সতর্ক করে দিয়েছেন জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য শওকত চৌধুরী। তিনি বলেন, ক্ষমতা খুব পিচ্ছিল জিনিস, এটাকে লক্ষ্য রাখবেন। এটা নিয়ে খেলা করবেন না, মিথ্যা কথা বলবেন না। তিনি বলেন, আমরা ঢাকা শহর ঘুরে দেখেছি ঢাকা শহরের ৯০ শতাংশ লোক আমাদের বিরোধিতা করে। এটা কেউ পর্যালোচনা করে না।

গতকাল রোববার জাতীয় সংসদে ২০১৭-১৮ সালের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর বক্তব্য রাখতে গিয়ে নীলফামারী-৪ আসনের এই সংসদ সদস্য এ কথা বলেন।

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধিসহ নানা কারণে রাজধানীর প্রতি ১০ জনের ৯ জনই সরকারের বিরুদ্ধে চলে গেছে বলে দাবি করে শওকত চৌধুরী বলেন, আগামী জাতীয় নির্বাচনে রাজধানীর ১৮টি আসনের মধ্যে একটিও পাবে না ক্ষমতাসীন দল।

দ্রব্যমূল্য, বিশেষ করে চালের দাম বাড়ায় কঠোর সমালোচনা করেন শওকত চৌধুরী। তিনি বলেন, আগে বলতাম, চাউলের দাম বেশি, নতুন ধান উঠলে কমে যাবে। এখন নতুন ধান উঠার পরেই চাউলের দাম ডাবল হয়ে গেছে। এটা কেন। আপনারা বলছেন মজুদ আছে, মজুদ আছে, আমার মনে হয় মজুদ টজুদ কিছুই নাই।

শওকত চৌধুরী বলেন, জিনিসের দাম বাড়েনি, এটা ফাঁকা বুলি। এ ফাঁকা বুলি দিয়ে পরে বিপদে পড়তে হবে। এইটা ঠিকঠাক করা দরকার। কোন্্ জিনিসের দাম বাড়েনি এটা বলেন?

শওকত চৌধুরী বলেন, চাউলের দামসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দামগুলো লক্ষ্য করবেন। সরকারের মন্ত্রী, এমপিরা ও সরকার এগুলো দেখুন। মানুষকে শান্তিতে থাকতে দিতে হবে। 

জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য বলেন, ‘বিভিন্ন কারণে ৯০ শতাংশ লোক আমাদের বিপক্ষে, কিন্তু তারা মুখ দিয়ে বলে না। সরকারের বিপক্ষে চলে গেছে ৯০ শতাংশ লোক ঢাকায় ১৮টা সিট একটা সিট পাবে কি না সন্দেহ আছে। আমি কিন্তু যা বলছি সত্য কথা বলছি, আপনারা যা মনে করেন না কেন।’

শওকত চৌধুরী বলেন, চাউল এবং নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম কমানোর চেষ্টা করেন দয়া করে। ফাঁকা বুলি মাইরেন না, বহু ফাঁকা বুলি মেরেছেন।

জাতীয় পার্টি কখনও আওয়ামী লীগের সঙ্গে বেইমানি করেনি মন্তব্য করেন এই সংসদ সদস্য।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ