সোমবার ১০ আগস্ট ২০২০
Online Edition

কাশ্মীরের শিশুদের চুরি যাওয়া শৈশব

৩০ মে, বিবিসি : বিশ্বের বুকে ছোট এক স্বর্গ কাশ্মীর। সব রূপ-সৌন্দর্য যেন ভিড় করেছে এখানে। ছোটবেলা থেকেই তুষার শুভ্রতা দেখে বড় হয় এখানকার শিশুরা। তবে সহিংসতার কাছে হার মানছে এই স্নিগ্ধতা। ভারত-নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের শিশুরা এখন দিন কাটায় আতঙ্ক নিয়ে। তাদের আঁকা ছবিতে ফুটে উঠে না শুভ্র প্রাকৃতিক সৌন্দর্য, বরং তীব্র উজ্জ্বল লাল রঙে রক্তের চিত্রই উঠে আসে। গত গ্রীষ্মকালটা অত্যন্ত রক্তাক্ত ও সহিংস বছর ছিল কাশ্মীরের মানুষের জন্য। এই সময়ে শিশুদের আঁকা কিছু ছবিতে ফুটে উঠেছে সহিংসতা তাদের মনে কতটা তীব্র প্রভাব ফেলেছে। বিবিসির প্রতিবেদনে তুল ধরা হয়েছে শিশুদের আঁকা কিছু ছবি।
গুলির আঘাতে অন্ধ একটি শিশু যে যুদ্ধের সমাপ্তি চায়, আবার লেখাপড়া করতে চায়, দেখতে চায় পৃথিবীর অপার সৌন্দর্য।
 ‘আমাদের স্কুল বাঁচাও, আমাদের বাঁচাও, আমাদের ভবিষ্যৎকে বাঁচাও’ ছবিতে তুলে ধরেছে মনের এমন কথা। শুভ্র বরফে ঢাকা কাশ্মীরে রক্তের ফোঁটা।
এক শিশু এঁকেছে সোনালি দিনের ছবি। লিখেছেÍকাশ্মীর বিশ্বের বুকে ছোট্ট এক স্বর্গ।
এই ছবিতে দেখা যাচ্ছে ছোট্ট একটি মেয়ে, গুলিতে যার একটি চোখ নষ্ট হয়ে গেছে। সে চায় এই ধ্বংসযজ্ঞ বন্ধ হোক। ইনশা নামের এক শিশুর ছবি এঁকেছে আরেক শিশু, যেখানে তার গুলিবিদ্ধ হওয়ার আগের অবস্থা ও পরের অবস্থা দেখানো হয়েছে। যুদ্ধ, সহিংসতায় পড়াশোনা বন্ধ হয়ে যাচ্ছে কাশ্মীরের শিশুদের। তাদের এই কষ্ট যেন ফুটে উঠেছে এই ছবিতে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ