শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১
Online Edition

নিউজিল্যান্ডকে ২৫৮ রানের টার্গেট দিল বাংলাদেশ

স্পোর্টস রিপোর্টার : ত্রিদেশীয় সিরিজে নিউজিল্যান্ডকে ২৫৮ রানের টার্গেট দিয়েছে বাংলাদেশ। গতকাল টস হেরে আগে ব্যাট করে বাংলাদেশ তিন হাফসেঞ্চুরিতে করে ২৫৭ রানের স্কোর। অবশ্য স্কোরটা আরো বড় দিতে পারত মাশরাফিরা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশ ৯ উইকেটে করতে পারে ২৫৭ রান। দলের পক্ষে সৌম্য সরকার সর্বোচ্চ ৬৭ রান  মুশফিকুর রহিম ৫৫ রান, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ৫১ রান ও মোসাদ্দেক হোসেন ৪১ রান করেন। টসে জিতে প্রথমে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক টম ল্যাথাম। ফলে আমন্ত্রণ পেয়ে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা দারুণ করেন ওপেনার তামিম-সৌম্য জুটি। আর ওপেনিং জুটিতেই বাংলাদেশ পায় ৭২ রান। দলীয় ৭২ রানের সময় সাজঘরের পথ ধরেছেন ওপেনার তামিম ইকবাল। তবে অপর ওপেনার সৌম্য সরকার দলকে এগিয়ে নেন। কিন্তু ওয়ান ডাউনে ব্যাট করতে নেমে ব্যর্থ হন সাব্বির রহমান। ১ রান যোগ করে দলীয় ৭৯ রানের মাথায় তামিমের পথ ধরেন সাব্বির। তবে মুশফিককে নিয়ে সৌম্য দলকে এগিয়ে নেন। দলীয় ১১৭ রানে সৌম্যের বিদায়ে ভাংগে এই জুটি।  ৬১ রান করে টিম সাউদের বলে লাথামের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরের পথ ধরেন সৌম্য। ৬১ রান করতে তিনি খরচ করেন ৬৭ বল। য়েখানে হাঁকিয়েছেন ৫টি চারের মার। সাকিব আল হাসান নেমেও দলকে এগিয়ে নিতে পারেননি। মাত্র ৬ রান করে ফিরেছেন সাকিব। সাকিব না পারলেও ফিফটি করার পর ৫৫ রান করে আউট হন মুশফিক।  ৬৬ বলে ৪ চার ও এক ছক্কায় এই ইনিংস খেলেছেন তিনি। মুশফিকের বিদায়ে দলের বরসা ছিল মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ -মোসাদ্দেক জুটি। এই জুটির উপর ভর করেই বাংলাদেশ ২৫৭ রান করতে পারে। কারণ অন্য কেউ দলের হয়ে বড় স্কোর করতে পারেননি। মোসাদ্দেক ৪২ রান করলেও দলের পক্ষে ফিফটি করার পর ৫১ রানে আউট হন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। রিয়াদ ৫৬ বলে ৬ চারে ৫১ আর মোসাদ্দেক ৪১ বলে চার চারে ৪১ রান করেন। মিরাজ ৬ রান আর মাশরাফি ১ রান করেন। কিউইদের সবচেয়ে সফল বোলার  বেনেট ১০ ওভারে ৩১ রান দিয়ে নিয়েছেন ৩ উইকেট। ২টি করে উইকেট পেয়েছেন ইশ সোধি ও নিশাম। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নিউজিল্যান্ড ব্যাট করতে নেমে কোন উইকেট না হারিয়ে ৫ ওভারে ২৭ রান নিয়ে ব্যাট করছিল। এই সিরিজে বাংলাদেশ প্রথম ম্যাচে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে মুখোমুখি হয়েছিল। ম্যাচটি বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয়। ফলে দুই দল পয়েন্ট ভাগাভাগি করে নেয়। অন্যদিকে নিউজিল্যান্ডও মুখোমুখি হয়েছিল স্বাগতিক আয়ারল্যান্ডের। তবে সেই ম্যাচে জয় পেয়েছিল নিউজিল্যান্ডই।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ