সোমবার ১০ আগস্ট ২০২০
Online Edition

চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির দলে ছয় পেসার

স্পোর্টস রিপোর্টার : সর্বশেষ সফরে শ্রীলঙ্কায় সাফল্য পাওয়ার পর টাইগারদের মিশন এবার আয়ারল্যান্ডে। সেখানে তিন জাতি ক্রিকেট টুর্নামেন্ট শেষ করে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি খেলতে ইংল্যান্ড উড়ে যাবে দলটি। আর এ দুটি সফরকে লক্ষ্য রেখে আগামী ১৯ এপ্রিল দল ঘোষণা করবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। আর সেখানে একজন বাড়তি পেসার নিয়ে মোট ছয় পেসার নিয়ে যাবেন বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু। গতকাল সাভারের বিকেএসপিতে বাংলাদেশ দল নিয়ে নান্নু বলেন, আমরা আগামী ১৯ এপ্রিল চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ও আয়ারল্যান্ডে তিন জাতি ক্রিকেট টুর্নামেন্টের জন্য দল ঘোষণা করব। তবে দলে তেমন কোনো পরিবর্তন না থাকলেও কন্ডিশনের কথা বিবেচনা করে একজন বাড়তি পেসার ও একজন অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান দলে নেয়ার বিষয় ভাবনা রয়েছে নির্বাচকদের। সম্প্রতি শ্রীলঙ্কায় পাঁচ পেসার নিয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ। অধিনায়ক মাশরাফির সঙ্গে ছিলেন তাসকিন আহেমদ, মোস্তাফিজুর রহমান, শুভাশিস রায় ও রুবেল হোসেন। তবে ইংল্যান্ড ও আয়ারল্যান্ডের উইকেট সিমিং হওয়ার কারণে আরও একজন পেসারের তাগিদ অনুভব করছে টিম ম্যানেজমেন্ট। সেক্ষেত্রে তাদেও প্রাথমিক বিবেচনায় শফিউলকে রেখেছেন। এছাড়াও পেস অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিনকেও বিবেচনায় রেখেছেন বলে জানান নান্নু। গততাল  বিকেএসপিতে প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচ দেখতে এসে জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন জানালেন, পরপর দুটি সিরিজ সামনে। খেলোয়াড়দের ইনজুরিতে  পড়ার শঙ্কাও  থাকে। তার চেয়ে বড় কথা হল পারফরম্যান্সের ওঠা-নামারও ব্যাপার আছে। আমরা প্রিমিয়ার লিগে চোখ রাখছি।
অভিজ্ঞ একজন ব্যাটসম্যান খুঁজছি। কেননা ইংল্যান্ডের কন্ডিশনে অভিজ্ঞরা বরাবরই  ভালো করে। নতুনদের সেখানে মানিয়ে নেয়া কঠিন। বাড়তি ক্রিকেটারদের মধ্যে একজন করে পেসার ও ব্যাটসম্যান রাখার কথা আমরা ভাবছি। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে স্কোয়াডে ছিল পাঁচ পেসার। আয়ারল্যান্ড ও ইংল্যান্ড সফরের জন্য দলে ছয় পেসার থাকবেন বলে জানান মিনহাজুল। ইংল্যান্ডে ক্যাম্পের জন্য বাংলাদেশ দলের দেশ ছাড়ার কথা আগামী ২৬ এপ্রিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ