শনিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

বিয়ের প্রলোভনে স্কুলছাত্রী ধর্ষণ ফেনী সংবাদদাতা: ফেনী শহরের রামপুরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করেছে

দাউদুল ইসলাম নামের এক বখাটে। এ ঘটনায় ওই স্কুলছাত্রী বাদী হয়ে বুধবার রাতে ফেনী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছে।
ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার ও পুলিশ সূত্র জানায়, সদর উপজেলার বালিগাঁও ইউনিয়নের সুন্দরপুর গ্রামের আলী আশ্রাফের ছেলে দাউদুল ইসলাম হৃদয় ও তার বন্ধু আরাফাত দশম শ্রেণীপড়–য়া ছাত্রীকে স্কুলের আসা-যাওয়ার পথে বিভিন্নসময় উত্ত্যক্ত করতো। একপর্যায়ে দাউদুল ইসলাম হৃদয় স্কুল ছাত্রীকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। পরে উভয়ের মাঝে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। বিয়ের কথা বলে চতুর হৃদয় ২৮ মার্চ রাতে তাকে বাসা থেকে বের করে সিএনজি অটোরিক্সাযোগে গোবিন্দপুর নতুন বাজারে একটি বাসায় নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে শোর-চিৎকার শুরু করলে ২ এপ্রিল বিকাল ৫টার দিকে শাহীন একাডেমী সড়কে তাদের বাসার সামনে রেখে হৃদয় পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় নির্যাতিতা বাদী হয়ে হৃদয় ও হৃদয়ের মা মনছুরা আক্তার রিনাসহ ৪ জনের নাম উল্লেখ করে ফেনী মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ