শুক্রবার ২৭ নবেম্বর ২০২০
Online Edition

দাগনভূঞায় সন্ত্রাসীদের হাতে ক্ষতিগ্রস্ত রাস্তা একবছরেও সংস্কার হয়নি

 

ফেনী সংবাদদাতা: ফেনীর দাগনভূঞার ইয়াকুবপুর ইউনিয়নে সন্ত্রাসী কর্তৃক ক্ষতিগ্রস্থ স্থানীয় সরকারের তালিকাভূক্ত রাস্তা দীর্ঘ ১ বছরেও সংস্কার করা হয়নি। 

এতে করে ওই রাস্তার আশপাশের বাসিন্দা, স্থানীয় বায়তুল আমান জামে মসজিদের মুসল্লি ও মীরেরপুলে অবস্থিত বিরাহিমপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, রাজাপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় ও মুক্তিযোদ্ধা শহীদ কামাল উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের চলাচলে বিঘœ ঘটছে।

ভুক্তভোগীরা জানিয়েছে, উপজেলার ইয়াকুবপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ বিজয়পুর গ্রামের বাসিন্দাদের অনুরোধে দাগনভূঞা উপজেলার তৎকালীন নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদা খানমের দেয়া বরাদ্দে গত বছরের মে মাসে চলাচলের রাস্তাটি মাটি ফেলে সংস্কার করা হয়। 

স্থানীয় সরকারের তালিকাভুক্ত (চিহ্নিতকরণ নং-৯৩০২৫৫৪০৮) এ রাস্তা দিয়ে আশপাশের ৭/৮ বাড়ীর বাসিন্দা, স্থানীয় মসজিদের মুসল্লি ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা যাতায়াত করত। 

কিন্তু প্রায় ২ মাস পর এক রাতে স্থানীয় সন্ত্রাসী রহমতের নেতৃত্বে সন্ত্রাসীরা রাস্তাটির প্রায় ৬০ ফুট কেটে পানিতে ফেলে দেয়। 

এ সময় স্থানীয়রা টের পেয়ে প্রতিরোধের চেষ্টা করলে তার হাতে দুই মহিলা আহত হয়। একইসময়ে ভূক্তভোগীদের বাড়ীতে থাকতে দিবেনা বলে হুমকি দেয়। জানা গেছে, এতে করে ওই রাস্তাটির সঙ্গে ২টি গ্রামীণ সড়কের সংযাগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। 

বিষয়টি স্থানীয়রা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে অবহিত করলে তিনি দাগনভূঞা থানাকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ করেন। সে সময়ে ভূক্তভোগীদের অভিযোগের ভিত্তিতে থানার ওসি মো. আসলাম উদ্দিন অভিযুক্তকে ডেকে রাস্তাটি আগের ন্যায় সংস্কার করে দেয়ার নির্দেশ দেন। 

অভিযুক্তরা দ্রুত সময়ে রাস্তাটি অবিকল সংস্কার করে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিলেও দীর্ঘ ১ বছরেও রাস্তাটি সংস্কার হয়নি। ফলে স্থানীয়দের চলাচলে মারাত্মক অসুবিধার সৃষ্টি হয়।

দাগনভূঞা থানার ওসি মো: আসলাম উদ্দিন এ ব্যাপারে অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়ার আশ^াস দেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ