বুধবার ১৫ জুলাই ২০২০
Online Edition

সিলেট ওসমানী বিমান বন্দরে নামলো আন্তর্জাতিক ফ্লাইট

সিলেট : দুবাই থেকে সরাসরি সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট ‘ফ্লাই দুবাই’ অবতরণ করলে যাত্রীদের ফুল দিয়ে বরণ করেন কর্তৃপক্ষ -ফয়ছল আহমদ

কবির আহমদ, সিলেট : অনেক আন্দোলন, অনেক অপেক্ষার পর অবশেষে প্রবাসীদের ১৯ বছরের অপেক্ষার পালা শেষ হলো। গতকাল বুধবার দুপুর ৩টার দিকে ১৪৭ জন যাত্রী নিয়ে দুবাই এয়ারপোর্ট থেকে দুবাই এয়ারলাইনসের একটি ফ্লাইট সিলেট এমএজি ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সরাসরি নামলো।
গতকাল বিকেল ৫টা ৪০ মিনিটে বিমানটি ফিরতি ফ্লাইটে যাত্রী নিয়ে দুবাইয়ের উদ্দেশে সিলেট ছেড়ে যায়।
আগত যাত্রীদের বিমানবন্দরে স্বাগত জানান বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন এমপি। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- জাতিসংঘে বাংলাদেশের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি ড. এ কে আবদুল মোমেন, বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের (বেবিচক) চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল এহসানুল গনি চৌধুরী, রিজেন্ট এয়ারওয়েজের চেয়ারম্যান ইয়াসিন আলী, ফ্লাই দুবাইয়ের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা গায়েত আল গায়েত, রিজেন্ট এয়ারওয়েজের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা লে. জেনারেল (অব.) এম. ফজলে আকবর, উপব্যাবস্থাপনা পরিচালক সালমান হাবিব, ফ্লাই দুবাই'র বাংলাদেশস্থ জেনারেল সেলস এজেন্ট ও স্কাই এভিয়েশন সার্ভিসের চেয়ারম্যান সাইফুল হক, ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইসমাইল রেজা চৌধুরী, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ।
১৯৯৮ সালের ২০ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক তকমা গায়ে লাগার প্রায় ১৭ বছর পর ২০১৫ সালের ১ এপ্রিল এমএজি ওসমানী বিমানবন্দর থেকে চালু হয় সরাসরি আন্তর্জাতিক ফ্লাইট। দুবাই থেকে ১৬৩ জন যাত্রী নিয়ে ফ্লাই দুবাইয়ের একটি ফ্লাইট ওইদিন বিকেলে অবতরণ করে। পরে ওসমানীতে নবনির্মিত রিফুয়েলিং স্টেশন থেকে জ্বালানি সংগ্রহ করে ১৩০ জন যাত্রী নিয়ে ফের দুবাইয়ের উদ্দেশ্যে উড্ডয়ন করে ফ্লাইটটি। এর মধ্য দিয়ে সিলেটবাসীর বহুল প্রতীক্ষিত এক স্বপ্নের বাস্তবায়ন ঘটেছিল। কিন্তু এরপরই ফ্লাইট চালনা বন্ধ করে দেয় ফ্লাই দুবাই।
এবার এ আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু থাকবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। আগামী তিন মাস ফ্লাই দুবাই সপ্তাহে পাঁচদিন আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালনা করবে। পরবর্তীতে সপ্তাহের প্রতিদিন চালু থাকবে ফ্লাইট।
এদিকে সিলেট এমএজি ওসমানী বিমান বন্দরে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনার ক্ষেত্রে বাধা ছিল রিফুয়েলিং স্টেশন। রিফুয়েলিং স্টেশন না থাকায় চালু হয়নি সরাসরি আন্তর্জাতিক ফ্লাইট। কিন্তু ২০১৫ সালের মার্চে ওসমানীতে রিফুয়েলিং স্টেশন র্নিমাণ কাজ শেষ হয়, যার প্রেক্ষিতে ওই বছরের পহেলা এপ্রিল ওসমানীতে অবতরণ করে ফ্লাই দুবাই। তবে তারা গ্রাউন্ড হ্যান্ডেলিংয়ের সমস্যা দেখিয়ে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বন্ধ করে দেয়। ফলে রিফুয়েলিং স্টেশনও গুণতে থাকে লোকসান।
তবে সেসব পেছনে ফেলে ওসমানী বিমানবন্দরের যেন আজ নতুন যাত্রা হচ্ছে। বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন গতকাল বিকেলে ওসমানী থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইটের উড্ডয়ন উদ্বোধন করেন।
ফ্লাই দুবাই এয়ারলাইন্স এখন থেকে ওসমানী বিমানবন্দরের মাধ্যমে আগামী তিন মাস সপ্তাহে পাঁচ দিন আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনা করবে। এরপর পুরো সপ্তাহই থাকবে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ