শনিবার ৩০ মে ২০২০
Online Edition

শততম টেস্টের শুরুটা ভালোই করেছে বাংলাদেশ

 

স্পোর্টস রিপোর্টার : শততম টেস্টের শুরুটা দারুণ করেছে বাংলাদেশ। প্রথম দিনেই বাংলাদেশ ২৩৮ রানে তুলে নিয়েছে ৭ উইকেট। প্রথম থেকেই শ্রীলংকার ওপর চাপ প্রয়োগ করে প্রথম দিনটা নিজেদের করে নিয়েছে টাইগাররা। বাংলাদেশের বোলিং আক্রমণে শ্রীলংকা দিন শেষে করতে পেরেছে ৭ উইকেটে ২৩৮ রানে। আলো স্বল্পতার কারণে গতকাল খেলা হয়েছে ৮৩.১ ওভার। গতকাল টস জিতে আগে ব্যাট করতে নেমে প্রথম থেকেই বাংলাদেশের বোলিং আক্রমণে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় দলটি। তবে দীনেশ চান্ডিমালের অসাধারণ ব্যাটিংয়ে শেষ পর্যন্ত ৭ উইকেটে ২৩৮ রান করতে পারে লংকানরা। চান্ডিমাল অপরাজিত আছেন ৮৬ রানে আর তার সঙ্গে দ্বিতীয় দিন শুরু করবেন অধিনায়ক রঙ্গনা হেরাথ ২১ রান নিয়ে।

গতকাল আগে ব্যাট করতে নেমে প্রথম তিন ওভারে কোন রানই করতে পারেনি দলটি। আর ৭০ রানে শ্রীলংকা হারায় ৪ উইকেট। তবে পঞ্চম উইকেট নেয়ার আগেই দলটি পৌঁছে যায় ১৩৫ রানে। তবে বাংলাদেশের বোলিংয়ে কঠিন চাপে পড়া স্বাগতিকদের টেনে তোলার চেষ্টা করেছেন দীনেশ চান্ডিমাল। হাফসেঞ্চুরি পূরণ করা এই ব্যাটসম্যানকে ৮৬ রানে ব্যাটিংয়ে আছেন। গতকাল প্রথম সেশনেই বাংলাদেশ ৪ উইকেট তুলে নিয়ে শ্রীলংকাকে চাপে ফেলে দেয়। তবে দ্বিতীয় সেশনে প্রতিরোধ গড়েন চান্ডিমাল ও ধনঞ্জয়। দুই জনের জুটিতেই সংগ্রহ ১০০ ছাড়ায় স্বাগতিকরা। কিন্তু দলীয় ১৩৬ রানে ধনঞ্জয়কে বোল্ড করে ৬৬ রানের এই জুটি ভেঙে ফের চাপ সৃষ্টি করেছেন তাইজুল। দ্বিতীয় সেশন শেষ হওয়ার আগে স্বাগতিকদের সংগ্রহ ছিল ৫ উইকেটে ১৪৯ রান। এই সেশনে ১ উইকেট হারিয়ে লঙ্কানরা তুলেছে ৭৯ রান। শ্রীলংকার ব্যাটিংয়ের শুরুতেই ওপেনার দিমুথ করুনারতেœকে ফিরিয়েছেন মুস্তাফিজুর রহমান। ৭ রানে করুনারতেœ বাইরের বল খেলতে গিয়ে জমা পড়েন মেহেদির হাতে। আর ১২তম ওভারে মিরাজের বলে বেড়িয়ে এসে খেলতে চেয়েছিলেন কুশল মেন্ডিস। তাতেই স্টাম্পড করে দেন উইকেটরক্ষক মুশফিক। মেন্ডিস বিদায় নেন ৫ রানে। এরপর টিকতে পারেননি ওপেনার উপুল থারাঙ্গাও। সেই মিরাজের আঘাতেই স্লিপে সৌম্য সরকারকে ক্যাচ দিয়ে ১১ রানে বিদায় তিনি। এরপর চতুর্থ উইকেটে জুটি গড়ে পরিস্থিতি সামলানোর চেষ্টা করেন গুনারতেœ ও চান্ডিমাল। এই জুটিতে ভর করেই ৭০ রানের কোটা পেরোয় স্বাগতিকরা। তবে শুভাশীষের বলে ভাঙে গুরুত্বপূর্ণ এই জুটি। লেগ বিফোর হয়ে বিদায় নেন গুনারতেœ ১৩ রানে। এই উইকেটের পরেই মধ্যাহ্নভোজের বিরতিতে যায় দুই দল। গুনারতেœ বিদায় নেয়ার আগে এই জুটি থেকে আসে ৩৫ রান। তবে বিরতির পর ফিরেই পঞ্চম উইকেটে জুটি গড়েন চান্ডিমাল ও ধনঞ্জয়। এই জুটিতেই ১২তম হাফসেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন চান্ডিমাল। ৪৭.২ ওভারে এই জুটি ভেঙে দেন স্পিনার তাইজুল। ৩৪ রানে ব্যাট করতে থাকা ধনঞ্জয়কে বোল্ড করেন তিনি। চান্ডিমালও আউট হয়ে যেতে পারতেন ৪৫.৩ ওভারে তাইজুলের বলে কিন্তু ক্যাচ উঠলেও দুর্দান্তভাবে সেটি লুফে নিলেও বল মাটিতে স্পর্শ করায় নাকচ হয়ে যায় আবেদন। আর সাকিবের বলে ক্লিন বোল্ড হয়ে ফিরে গেছেন ডিকবিলা। আউট হওয়ার আগে তিনি করেন ৩৪ রান। এর পর ক্রিজে আসেন দিলরুয়ান পেরেরা। খুব বেশি সময় তিনি সঙ্গ দিতে পারেননি চান্ডিমালকে, ৯ রান করে ফিরে যান মুস্তাফিজের বলে। বাংলাদেশের পক্ষে মোসাস্তাফিজ আর মিরাজ নেন ২টি করে উইকেট। সাকিব, তাইজুল আর শুভাসিশ একটি করে উইকেট নেন। এই টেস্টে বাংলাদেশ দলে রয়েছে চারটি পরিবর্তন। ফিরেছেন ইমরুল কায়েস, সাব্বির রহমান ও তাইজুল ইসলাম। আর টেস্ট অভিষেক হচ্ছে মোসাদ্দেক হোসেনের। আগের টেস্ট থেকে বাদ পড়েছেন তাসকিন ও মুমিনুল। লিটন কুমার দাস চোট নিয়ে আগেই ছিটকে গেছেন আর মাহমুদউল্লাহ যে থাকছেন না তা আগেই নিশ্চিত ছিল।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

শ্রীলংকা ১ম ইনিংস: ৮৩.১ ওভারে ২৩৮/৭ (করুনারতেœ ৭, থারাঙ্গা ১১, মেন্ডিস ৫, চান্দিমাল ৮৬*, গুনারতেœ ১৩, ডি সিলভা ৩৪, ডিকভেলা ৩৪, পেরেরা ৯, হেরাথ ১৮*; মুস্তাফিজ ২/৩২, শুভাশীষ ১/৪৭, মিরাজ ২/৫৮, তাইজুল ১/৩৪, সাকিব ১/৪৩, মোসাদ্দেক ০/১১)।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ