শুক্রবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

ন্যাম হত্যায় সন্দেহভাজনদের মধ্যে উত্তর কোরীয় কূটনীতিক

২২ ফেব্রুয়ারি, বাসাস/আল জাজিরা: উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সৎভাই কিম জং ন্যাম খুনের অন্যতম সন্দেহভাজন হিসেবে উত্তর কোরীয় দূতাবাসের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাকে শনাক্ত করেছে মালয়েশীয় পুলিশ। শনাক্ত করা অপর সন্দেহভাজন উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় এয়ারলাইনের সঙ্গে যুক্ত বলে বুধবার জানিয়েছে তারা।
সন্দেহভাজনরা এখনও মালয়েশিয়াতেই আছেন এবং জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের ডাকা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মালয়েশিয়া পুলিশের প্রধান খালিদ আবু বকর। উত্তর কোরিয়ার ওই কূটনীতিক দূতাবাসের দ্বিতীয় সচিব বলে জানিয়েছেন তিনি।  এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, “তিনি দূতাবাসের দ্বিতীয় সচিব। তাদের পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়নি, সহযোগিতা করার জন্য তাদের ডেকে পাঠানো হয়েছে।” সন্দেহভাজন অপরজন এয়ার কোরিওর একজন কর্মী বলে জানান তিনি। ১৩ ফেব্রুয়ারি কুয়ালালামপুর আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ন্যাম খুন হন। খুনের আগে ম্যাকাওয়ের বিমান ধরার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন তিনি। হামলার দিন মালয়েশিয়ার থেকে পালিয়ে যাওয়া চার সন্দেহভাজন উত্তর কোরিয়ার রাজধানী পিয়ংইয়ংয়ে চলে গেছেন, মালয়েশীয় পুলিশ এটি ‘দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস’ করে বলে জানিয়েছেন খালিদ। গত সপ্তাহে ন্যাম হত্যায় জড়িত সন্দেহে উত্তর কোরীয় এক পুরুষ ও ভিয়েতনাম ও ইন্দোনেশিয়ার দুই নারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।  ওই দুই নারী ন্যামের মুখে একটি তরল মেখে দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন খালিদ। তবে ওই তরলটি এখনও শনাক্ত করা যায়নি বলে জানান তিনি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ