শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

খালেদা জিয়াসহ ৩৮ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ শুনানি পেছালো

স্টাফ রিপোর্টার: রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে বাসে পেট্রোলবোমা মেরে মানুষ পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াসহ ৩৮ জন আসামীর বিরুদ্ধে করা মামলায় অভিযোগ গঠনের বিষয়ে শুনানির তারিখ পিছিয়েছেন আদালত। 

গতকাল রোববার যাত্রাবাড়ীতে বাসে পেট্রোলবোমা মেরে মানুষ পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় করা বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলায় অভিযোগ গঠনের বিষয়ে শুনানির ধার্য দিনে শারীরিক অসুস্থতার কারণে খালেদা জিয়া আদালতে হাজির হতে পারেননি। এজন্য তার পক্ষে সময়ের আবেদন করেন আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া। 

শুনানি শেষে ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ রুহুল আমিন আসামীপক্ষের সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে আগামী ২৭ এপ্রিল পরবর্তী দিন ধার্য করেন। মামলাটিতে ২০১৫ সালে ৬ মে খালেদা জিয়াসহ ৩৮ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন ডিবি পুলিশের এসআই বশির আহমেদ।

অভিযোগপত্রে উল্লেখযোগ্য অপর আসামীদের মধ্যে রয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য এমকে আনোয়ার, সালাউদ্দিন আহমেদ, অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন, চেয়ারপারসনের তথ্য উপদেষ্টা শওকত মাহমুদ, বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, খালেদা জিয়ার প্রেস সচিব মারুফ কামাল খান সোহেল।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ২৩ জানুয়ারি রাত ৯টায় যাত্রাবাড়ীর ডেমরা রোডের মাতুয়াইল কাউন্সিলর অফিসের সামনে গ্লোরী পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাসে পেট্রোলবোমা হামলায় দগ্ধ হন কমপক্ষে ৩১ জন। যাদের মধ্যে ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসারত অবস্থায় নূর আলম নামে একজন মারা যান। ঘটনার পর পরিকল্পনাকারী হিসেবে বিএনপির কেন্দ্রীয় ১৮ জন নেতাসহ যাত্রাবাড়ীর ছাত্রদল শ্রমিকদলসহ বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের ৫০ জন নেতা-কর্মীর নাম উল্লেখ করে মামলাটি করা হয়েছিল।

আজ আদালতে যাবেন খালেদা জিয়া : জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনে অসমাপ্ত বক্তব্য দিতে আজ সোমবার আদালতে যাবেন বিএনপি চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া। ঢাকার বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত তৃতীয় বিশেষ জজ আবু আহমেদ জমাদ্দারের আদালতে হাজিরা দেবেন তিনি। এর আগে গত বৃহস্পতিবার হরতাল ও অসুস্থতাজনিত কারণে আদালতে হাজির না হওয়ায় খালেদা জিয়ার পক্ষে তার আইনজীবীরা সময় আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক ৩০ জানুয়ারি আত্মপক্ষ সমর্থনের পরবর্তী তারিখ ধার্য করেন। এদিন আদালতে হাজির না হলে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হবে বলে আদালত জানান। ওইদিনই জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন একই আদালত।

বিএনপি চেয়ারপার্সনের প্রেস উইং সদস্য শামসুদ্দিন দিদার জানান, বেগম খালেদা জিয়া সোমবার সকাল দশটার দিকে বকশিবাজারের আদালতে হাজিরা দেয়ার জন্য রওনা হবেন। ১১টার দিকে আদালতে পৌঁছার কথা রয়েছে তার।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ