শুক্রবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

গাছ এলজিইডির ॥ কাটলো পল্লীবিদ্যুৎ!

সাটুরিয়া (মানিকগঞ্জ) সংবাদদাতা : মানিকগঞ্জ জেলার সাটুরিয়া উপজেলার সাটুরিয়া-দরগ্রাম সড়কের কয়েক কিলোমিটার এলাকা জুড়ে সামাজিক বনায়নের আওতায় এলজিইডির মালিকানাধীন শত শত ফলদ বনজ ও ঔষধি বৃক্ষ বেপরোয়াভাবে কর্তন করেছে মানিকগঞ্জ পলীবিদ্যুৎ সমিতি। এ ঘটনায় সাটুরিয়া উপজেলা প্রকৌশল অফিস পল্লীবিদ্যুৎ সাটুরিয়া জোনাল অফিসের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর অভিযোগ দাখিল করেছে।্ এতে সাধারণ মানুষের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল বুধবার সরেজমিনে দেখা যায় পল্লী বিদ্যুতের লাইনম্যানগণ বেপরোয়াভাবে বিভিন্ন প্রকার শত শত কাঠ , ফল, ও ভেষজ গাছ, অপ্রয়োজনীয় কারণেই গোড়া হতে কেটে ফেলছে। খবর পেয়ে উপজেলা প্রকৌশল অফিসের উপ প্রকৌশলী মোঃ আব্দুর রজ্জাক গাছ কাটায় বাধাদিলেও তার বাধা উপেক্ষা করেই গাছ কাটতে থাক্ েএক পর্যায়ে একটি গাছ পড়ে তার অফিসের মোটর সাইকেল ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয় হয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। অনুমোদন বিহীন গাছ কাটার বিষয়ে সাটুরিয়া উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ মহিউদ্দিন বাবলু গাছ কর্তনে দুঃখ পেয়ে এটিকে মানুষ খুনের সাথে তুলনা করে বলেন, এধরনের অনুমোদনহীন বৃক্ষ নিধন ঘটনাটি চরম বেদনাদায়ক, তিনি আরও জানান, ইতোমধ্যে বন বিভাগকে অনুরোধ করা হয়েছে গাছ কর্তনে ক্ষয়ক্ষতির পরিমান নির্ধারণ করার জন্য। অপরদিকে পল্লীবিদ্যুৎ সাটুরিয়া জোনাল অফিসের এজিএম মোঃ ইউছুফ আলী জানান, লাইনের নিচের গাছের ডালপালা কর্তনের বিধান রয়েছে। তবে গাছ কর্তনের বিষয়টি নিয়ে স্পষ্ট কিছু বলেন নি। অপরদিকে সাটুরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাহিদ ফারজানা সিদ্দিকী বলেছেন, পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিকে এভাবে গাছ কটার অনুমতি দেয়া হয়নি, বিষয়টি খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। উল্ল্যেখ্য যে, মাঝে মাঝেই সাটুরিয়া পল্লী বিদ্যুৎ অফিস লাইনের আশেপাশের গাছ কাটার নামে নির্বিচারে সাধারণ মানুষর গাছগাছালির ব্যাপক ক্ষতিসাধন করে বলে এলাকাবাসী অভিযোগ করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ