শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

রোহিঙ্গাদের কাজের অনুমতি দিতে অ্যামনেস্টি মালয়েশিয়ার আহ্বান

২৯ ডিসেম্বর, ফ্রি মালয়েশিয়া টুডে : বাইরে থেকে শ্রমিক নিয়োগ না করে দেশের ভেতরেই যে রোহিঙ্গা শরণার্থীরা রয়েছেন, তাদের কাজ করার অনুমতি দেয়ার জন্য মালয়েশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছে দেশটির অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল শাখা।

এ প্রসঙ্গে অ্যামনেস্টি মালয়েশিয়ার নির্বাহী পরিচালক শামিনী দর্শনী কালিমুথু বলেন, এক বুদ্ধিমান সরকার কখনও নিজের কাছে থাকা শ্রমশক্তি ব্যবহার না করে বিদেশি শ্রমিক নিয়োগ করবে না।

মালয়েশিয়ার সংবাদমাধ্যম ফ্রি মালয়েশিয়া টুডে-কে শামিনি বলেন, ‘রোহিঙ্গা শরণার্থীদেরকে আমাদের শ্রমের উৎস লহিসেবে দেখতে হবে। তারা আমাদের কাছেই রয়েছেন। তাদের কাজ করার অধিকার অনুমতি দেওয়া উচিত।’

শামিনি কিছু নীতিগত পরিবর্তনের আহ্বান জানিয়েছেন। যার মাধ্যমে মালয়েশীয় রোহিঙ্গাদের নিজ সমাজের অংশ বলে গণ্য করতে শুরু করবে।

তিনি বলেন, ‘রোহিঙ্গারা আমাদের চাকরি হাতিয়ে নিচ্ছে না, বরং তারা দেশের অগ্রগতিতে কার্যকর ভূমিকা নিতে পারে, আমাদের এমন দৃষ্টিভঙ্গী নিয়ে এগোতে হবে। তাদের অন্য কোথাও যাওয়ার জায়গা নেই বলেই তারা এখানে এসেছেন।’

 রোহিঙ্গাদের পক্ষে মালয়েশীয় সরকারের পদক্ষেপের প্রশংসা করে শামিনি জানান, শুরু রোহিঙ্গাদের জন্য নয়, বরং বিশ্বের অন্যান্য জায়গার শরণার্থীদের জন্যও সরকারের আরও অনেক কিছুই করার আছে।

শামিনি বলেন, ‘অ্যামনেস্টি মালয়েশিয়ার প্রতি আহ্বান জানাচ্ছে, ইতোমধ্যে দেশটিতে প্রচুর শরণার্থী থাকলেও, তারা যেন বিশ্বের যে কোনও অঞ্চল থেকে আসা আরও শরণার্থী গ্রহণ করার কথা বিবেচনা করেন।’

শরণার্থীদের বিশেষ ক্ষেত্রে অবদানের কথা উল্লেখ করে শামিনি বলেন, ‘শরণার্থীরা দেশের অগ্রগতিতে তাদের দক্ষতা কাজে লাগাতে পারেন। এমনকি তাদের মধ্যে কোনও বিজ্ঞানীও থাকতে পারেন। তবে যদি তারা শরণার্থী হিসেবেই থেকে যান, তবে তা সম্ভব হবে না। দেশ থেকে বের হলে তাদের জায়গা হবে তৃতীয় বিশ্বে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ