শনিবার ১৫ আগস্ট ২০২০
Online Edition

মহান বিজয় দিবস উদযাপিত

রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) সংবাদদাতা : লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে রায়পুর শহর জামায়াতে ইসলামীর উদ্যোগে শুক্রবার বিকেলে রায়পুর শহরের স্থানীয় একটি মিলনায়তনে আলোচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রায়পুর শহর শাখার জামায়েতের  আমির মাষ্টার ইসমাইল হোসেন, সেক্রেটারি ফজলুল করিম, নায়েবে আমির নুরুল আমিন দেওয়ান, রায়পুর শহর শাখার কর্মপরিষদ সদস্য মাওলানা আলী হোসেন, আনোয়ার হোসেন প্রমুখ।
এসময় ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে আত্মত্যাগকারী বীর মুক্তিযোদ্ধাদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া করা হয়।
এদিকে রায়পুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে মহান বিজয় দিবস পালন করেছেন প্রশাসন, প্রেসক্লাব সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠন। এছাড়াও উপজেলা প্রশাসন প্রায় ২শ মুক্তিযোদ্ধা ও তার পরিবারকে সংবর্ধনা দিয়েছেন। বিকেলে মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে করা বিভিন্ন সংগঠন নাটক প্রদর্শন করেন।
শুক্রবার সকালে মারমেন্টস্ একাডেমীর মাঠে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করে সশস্ত্র সালাম, কুচকাওয়াজ, শারীরিক কসরত এবং বর্ণাঢ্য বিজয় র‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়।
র‌্যালিটি উপজেলা পরিষদ চত্ত্বর  থেকে শুরু হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে মার্”েন্টস্ একাডেমীর মাঠে এসে শেষ হয়। কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে উপজেলা পুলিশ প্রশাসনসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা শারীরিক কসরত প্রদর্শন করেন এবং তা গ্রহণ করেন অতিথিবৃন্দ।  দুপুরে আলোচনাসভা ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মুক্তিযোদ্ধাদেরকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা  জানানো হয়।
অনুষ্ঠানে লক্ষ্মীপুর-২ (রায়পুর) আসনের সাংসদ মোহাম্মদ নোমান, উপজেলা চেয়ারম্যান মাষ্টার আলতাফ হোসেন হাওলাদার, পৌর মেয়র ইসমাইল খোকন , ইউএনও শিল্পী রানী রায়, ওসি লোকমান হোসেন, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা কামাল হোসেন, এলজিইডি প্রকৌশলী আক্তার হোসেন ভূঁইয়া, কমিউনিটি পুলিশিং সেলের সভাপতি কাজি জামসেদ কবির বাক্বিবিল্লাহ, মুক্তিযোদ্ধা নিজাম উদ্দিন পাঠান,   ব্যাংক কর্মকর্তা জাকির হোসেন প্রমুখ।
সিরাজগঞ্জ
যথাযথ মর্যাদায় বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্যে দিয়ে ‘‘মহান বিজয় দিবস’’ ২০১৬ পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে রাত ১২টা১মিনিটে ৩১বার তোপধ্বনির মধ্যে দিয়ে দিনটি কার্যক্রম শুরু হয়।
এরপর সিরাজগঞ্জ বাজার ষ্টেশনে অবস্থিত মুক্তির সোপানে শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধ্যা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্যে দিয়ে বিজয় দিবসের সূচনা করেন সিরাজগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য অধ্যাপক ডাঃ হাবিবে মিল্লাত মুন্না, সিরাজগঞ্জ-পাবনা সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য সেলিনা বেগম স্বপ্না, জেলা প্রশাসক কামরুননাহার সিদ্দিকা, পুলিশ সুপার মিরাজ উদ্দিন আহমেদ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, সিরাজগঞ্জ প্রেসক্লাব, সিরাজগঞ্জ টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক  সংগঠনের পক্ষ থেকেও পুষ্পস্তবক অর্পন করা হয়।
দিবসটি উপলক্ষে বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি অফিসে ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়।
শরীয়তপুর
শরীয়তপুরে বুধবার সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিনের কর্মসূচী শুরু হয়। এরপর শরীয়তপুর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে জেলা প্রশাসক মাহমুদুল হোসাইন, পুলিশ সুপার মোঃ সাইফুল্লাহ আল মামুন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের কমান্ডার এম এ সাত্তার খান পুষ্পার্ঘ অর্পণ করেন।
দুপুরে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসক মোঃ মাহমুদুল হোসাইন খানের সভাপতিত্বে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও শরীয়তপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য বি. এম. মোজাম্মেল হক।
বিশেষ অতিথি ছিলেন, বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ শরীয়তপুরের জেলা কমান্ডার এম. এ সাত্তার খান, পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন, শরীয়তপুর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল হাসেম তপাদার, শরীয়তপুর পৌরসভার মেয়র মো: রফিকুল ইসলাম কোতোয়াল, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শরীয়তপুর সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মাষ্টার আবুল ফজল।
সুবর্নচর (নোয়াখালী)
সারা দেশের ন্যায় সুবর্নচর উপজেলায় ৪৫তম বিজয় দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালিত হয়।
দিনের কর্মসুচীর অংশ হিসেবে রাত ১২টা ১ মিনিটে ৩১বার তোপধ্বনি এবং উপজেলার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুষ্পমাল্য অর্পণের  মাধ্যমে কার্যক্রম শুরু হয়। সকাল ৯টায় উপজেলা পরিষদ মাঠে বাংলাদেশ পুলিশ,মুক্তিযোদ্ধা,বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কাব,স্কাউট ,রোভারদের কুচকাওয়াজ ও শারীরিক কসরত অনুষ্ঠিত হয় ।
কুচকাওয়াজে সালাম গ্রহণ করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ ,এইচ ,এম খায়রুল আনম চৌধুরী ,উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ হারুন অর রশীদ ও চর জব্বর থানার অফিসার ইন্চার্জ মোঃ নিজাম উদ্দিন  বেলা ১২টায় উপজেলা হল রুমে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ হারুন অর রশীদ এর সভাপতিত্বে মুক্তিযোদ্ধাদের এক সংর্বধনা অনুষ্ঠিত হয় ।অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ এইচ এম খায়রুল আনম চৌধুরী । শহীদ জয়নাল আবেদীন মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারি প্রধান শিক্ষক শিমুল চন্দ্র দাসের উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন ৫নং চর জুবিলী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ হানিফ চৌধুরী, ৩নং চরক্লার্ক ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান এডভোকেট আবুল বাসার ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার সুবিমল দাস।
আগৈলঝাড়া (বরিশাল)
শুক্রবার সকালে শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত ডিগ্রী কলেজ মাঠে স্বাধীনতা বিজয় মঞ্চে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গাজী তারিক সালমন’র সভাপতিত্বে বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের নির্বাহী সদস্য সেরনিয়াবাত আশিক আবদুল্লাহ। সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম মোর্তুজা খান, উপজেলা কমিশনার (ভুমি) শতরুপা তালুকদার, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো.মনিরুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ বরিশাল জেলা ইউনিট কমান্ডের সহকারী কমান্ডার (প্রচার) আব্দুর রইচ সেরনিয়াবাত, মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার আবু তাহের মিয়া, জেলা পরিষদ সদস্য এ্যাড. রনজিত সমদ্দার, জেলা পরিষদের সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পেয়ারা ফারুক বখতিয়ার, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জসীম সরদার, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মলিনা রানী রায়, মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক সরদার, অধ্যাপক (অবঃ) লিয়াকত আলী হাওলাদার, প্রমুখ।
বিজয় দিবস উপলক্ষে সকালে আগৈলঝাড়া উপজেলা প্রশাসন শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত ডিগ্রী কলেজ মাঠে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গাজী তারিক সালমন’র সভাপতিত্বে স্বাধীনতা বিজয় মঞ্চে মুক্তিযুদ্ধে সর্বোচ্চ আত্মত্যাগের জন্য ১৭ জন শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের নির্বাহী সদস্য সেরনিয়াবাত আশিক আবদুল্লাহ। সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম মোর্তুজা খান, উপজেলা কমিশনার (ভুমি) শতরুপা তালুকদার, বরিশাল জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ইউনিট কমান্ডের সহকারী কমান্ডার (প্রচার) আব্দুর রইচ সেরনিয়াবাত, মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার আবু তাহের মিয়া, মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক সরদার, অধ্যাপক (অবঃ) লিয়াকত আলী হাওলাদার, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো.মনিরুল ইসলামসহ প্রমুখ।
ফুলবাড়ী (দিনাজপুর)
গত শুক্রবার মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানী লিঃ এর শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়ন ( সিবিএ) এর উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
দিবসটিকে সামনে রেখে শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের কার্যালয় থেকে একটি বিজয় র‌্যালি বের হয়, র‌্যালিটি, বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানী লিঃ এর সদর দপ্তরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় ইউনিয়ন কার্য্যালয়ে এসে শেষ হয়।
র‌্যালি শেষে সিবিএ কার্য্যালয়ের সভাকক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানী লিঃ এর শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়ন (সিবিএ) সভাপতি মোঃ আবুল কাশেম সিকদারের সভাপতিত্বে, বক্তব্য রাখেন, সিবিএ সাধারণ সম্পাদক মোঃ মহিউদ্দিন আহম্মেদ, সিনিয়র সহ সভাপতি মোঃ জাহাঙ্গির আলম, সহসভাপতি মোঃ আমিনুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আব্দুর রাজ্জাক, কোষাধ্যক্ষ মোঃ আব্দুল নুর শাহিন মন্ডল, কার্যকরি সদস্য মোঃ আজগর আলী প্রমুখ।
নীলফামারী
ডোমারে প্রতিবন্ধী শিশুদের নিয়ে বিজয় দিবসের কর্মসূচী পালন করলেন জেলার ডোমার উপজেলার বোড়াগাড়ী বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী ও অটিজম বিদ্যালয়। শুক্রবার সকালে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে প্রতিবন্ধী শিশুদের নিয়ে ক্রীড়া প্রতিযোগীতা শুরু হয়। দিনব্যাপী বিভিন্ন ক্রীড়া প্রতিযোগীতা শেষে বিদ্যালয় মাঠে পুরস্কার বিতরণ, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। বিদ্যালয়ের সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুর রউফ মন্ডলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সাইদার রহমান ইউপি সদস্য মোজাম্মেল হক মোজা, ইউপি সদস্য রুহুল আমিন, ইউপি সদস্য জয়নাল আবেদিন, আতাউর রহমান বাদশা, বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ আরিফা শেখ আশা, শিক্ষক মনছুরা বেগম, তুহিনা আকতার, তাবাচ্ছুম মায়া, নার্গিস আকতার ও আনজারুল ইসলাম।
এদিকে নানা কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে নীলফামারীতে পালিত হয়েছে মহান বিজয় দিবস। দিবসের শুরুতে রাত ১২টা ১ মিনিটে তোপধ্বনির মাধ্যমে শুরু হয় বিজয় দিবসের আনুষ্ঠানিকতা। এরপর স্থানীয় স্বাধীনতা স্মৃতি অম্লানে জেলা প্রশাসন, পুলিশ সুপার, মুক্তিযোদ্ধা সংসদসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও পেশাজীবী সংগঠনের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শহীদদের শ্রদ্ধা জানানো হয়। সকালে জেলা স্টেডিয়ামে কুচকাওয়াজ পরিদর্শন করেন জেলা প্রশাসক মোঃ জাকীর হোসেন।
লালমনিরহাট
জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে রাত ১২টা ১ মিনিটে ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে শুভ সুচনা, শহীদের স্মরণে পুস্পস্তবক অর্পণ, জাতীয় পতাকা উত্তোলন, জেলা স্টেডিয়ামে কুচকাওয়াজ, মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক ডিসপ্লে প্রদর্শন, বিজয় র‌্যালি, বীর মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় ও সংবর্ধনাসহ দিনব্যাপি নানা কর্মসূচী পালন করেছেন। প্রতিটি অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক আবুল ফয়েজ মোঃ আলাউদ্দিন খাঁন, পুলিশ সুপার এস এম রশিদুল হক ও বীরপ্রতীক আজিজুল হক উপস্থিত ছিলেন।
অপর দিকে দিবসটি উপলক্ষে আ’লীগ, বিএনপি, জাতীয়পাটি, জাসদ ও বিভিন্ন রাজনীতিক দল এবং সামাজিক সংগঠন পৃথক কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করেছেন। এছাড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কল-কারখানা, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস পালিত হয়েছে।
বড়াইগ্রাম (নাটোর)
নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলা প্রশাসন, উপজেলা আওয়ামীলীগ, উপজেলা বিএনপি ও বনপাড়া পৌর বিএনপিসহ বিভিন্ন সংগঠণের উদ্যোগে বর্ণাঢ্য আয়োজনে পালিত হয়েছে মহান বিজয় দিবস।
সকালে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে ইউএনও ইশরাত ফারজানার মুক্তিযোদ্ধা সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি সাবেক প্রতিমন্ত্রী অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস এমপিসহ মেয়র কেএম জাকির হোসেন, ভাইস চেয়ারম্যান হেলেনা বেগম, ওসি শাহরিয়ার খাঁন, আব্দুল জলিল প্রামাণিক ও শামসুল হক বক্তব্য রাখেন।
অপরদিকে, উপজেলা বিএনপি ও বনপাড়া পৌর বিএনপির উদ্যোগে পৃথকভাবে বর্ণাঢ্য র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলা বিএনপির সভাপতি এ্যাডভোকেট আব্দুল কাদের মিয়ার সভাপতিত্বে আয়োজিত আলোচনা সভায় উপজেলা সাধারণ সম্পাদক হজরত আলী, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হেলেনা বেগম, উপজেলা সহ-সভাপতি আলী আকবর, নুরুল ইসলাম, সরদার সুলতান আহমেদ, আলী আকবর ও লুৎফর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক আব্দুল আলিম, বিএনপি নেতা আব্দুস সালাম, হাবিবুর রহমান ও উপজেলা ছাত্রদলের সভাপতি কোরবান আলী বক্তব্য রাখেন। এছাড়া বনপাড়া পৌর বিএনপির পৃথক আলোচনা সভায় পৌর সভাপতি অধ্যাপক এম লুৎফর রহমানের সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক সরদার রফিকুল ইসলাম ও ওয়ার্ড কাউন্সিলর আতিকুর রহমান বেলাল, প্রচার সম্পাদক আবু বকর সিদ্দিকসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা বক্তব্য রাখেন।
বেনাপোল
বেনাপোল ও শার্শায়  নানা কর্মসূচী গ্রহন করেছে শার্শা উপজেলা প্রশাসন, কাস্টমস , বন্দর, প্রেস ক্লাব বেনাপোল, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, কাস্টমস সিএন্ডএফ এজেন্টস এসোসিয়েশন, আওয়ামীলীগ ও বিএনপি সহ বিভিন্ন স্কুল কলেজ।
সকাল থেকে স্মৃতিসৌধে জনতার ঢল নেমেছে। শিশু থেকে বৃদ্ধ অধিকাংশের হাতে লাল-সবুজের পতাকা ও র‌্যালি , মুখে নানা স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠে বেনাপোলর কাগজপুকুর স্মৃতিসৌধে। সকালে শার্শা স্টেডিয়ামে কুচকাওয়াজ, আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
এর আগে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুস সালাম’র নেতৃত্বে স্মৃতিসৌধে ২১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিবসটির সুচনা করেন শার্শা উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন। বীর শ্রেষ্ঠ নুরমোহাম্মদ এর মাজারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান উপজেলা প্রশাসন।
আলীকদম (বান্দরবান)
বান্দরবানের আলীকদমে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে নানা কমূর্সচীর মধ্য দিয়ে ৪৫তম মহান বিজয় দিবস উদ্যাপন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে প্রশাসনের উদ্যোগে শুক্রবার সকালে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত হয় বর্ণাঢ্য কর্মসূচি। রাতে স্মৃতি সৌধে অনুষ্ঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের মূল কেন্দ্রবিন্দু কুচকাওয়াজে প্রথম স্থান অধিকার করে ‘আলীকদম আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ’।
১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের প্রথম প্রহরে উপজেলা পরিষদ, উপজেলা প্রশাসন, সরকারী-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাস্কৃতিক সংগঠনসহ বিভিন্ন সংগঠনের প্রতিনিধিরা স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। ১৫ ডিসেম্বর বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রীদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা সম্পন্ন হয়।
সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সকল সরকারি, বেসরকারি, স্বায়ত্ত্বশাসিত ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসমুহে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়।
সকালে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন উপজেলা চেয়ারম্যান আঃ কালাম, বান্দরবান জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার ইফতেখারুল ইসলাম ও অফিসার ইনচার্জ (ওসি) অপ্পেলা রাজু নাহা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ