বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

ফুটবলকে বিদায় জানালেন রজনী কান্ত বর্মন

স্পোর্টস রিপোর্টার : শেখ রাসেল ও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় পর্বের ম্যাচটি হয়ে উঠেছিল রজনী কান্ত বর্মনের বিদায়ী ম্যাচ। অধিনায়কের আর্মব্যান্ড পরে খেলতে নেমেছিলেন এই ডিফেন্ডার। ৩৭ বছর বয়সে এসে রক্ষণ সামলালেন আগের মতোই। প্রথমার্ধের শেষ দিকে আনুষ্ঠানিকভাবে মাঠ ছাড়লেন রজনী; শেষ পর্যন্ত সতীর্থরাও তাকে উপহার দিল ২-০ গোলের জয়। ১৯৯৪ সালে অগ্রণী ব্যাংকের হয়ে সিনিয়র ডিভিশন ফুটবল লিগ শুরু পর ১৯৯৬ সালে তিনি যোগ দেন মোহামেডানে। এরপর মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্র, ব্রাদার্স ইউনিয়ন, আবাহনী লিমিটেড ঘুরে যোগ দেন শেখ রাসেলে। ২০১৩-১৪ মৌসুম পর্যন্ত শেখ রাসেলে খেলার পর আর মাঠে নামেননি। সর্বশেষ খেলা দলটিতে রজনী ফেরেন ট্রেনার হয়ে। ১৯৯৬ সাল থেকে ২০১৩ পর্যন্ত জাতীয় দলের হয়ে খেলা রজনী অধিনায়ক হিসেবে জিতেছেন ২০০৩ সালের সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা। কার্ডের কারণে ১৯৯৯ সালের সাফের ফাইনালে খেলতে পারেননি। বিদায় বেলায় রজনী জানালেন কোনো কিছু নিয়ে আক্ষেপ নেই তার; ফুটবল থেকে মুঠোভরে পেয়েছেন তিনি।“২০১৩-১৪ মৌসুমে খেলা ছেলেছিলাম। আমার সৌভাগ্য যে, এতদিন পর মাঠে ফিরলাম, মাঠ থেকে বিদায় নেওয়াটা আমার জন্য গর্বের। দেশবাসী, আপনাদের, সবার কাছে আমি কৃতজ্ঞ। বিশেষ করে মানিক ভাই (শেখ রাসেল কোচ) ও শেখ রাসেলের কাছে আমি কৃতজ্ঞ, তারা আমাকে মাঠ থেকে বিদায় নেওয়ার সুযোগ করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ