শুক্রবার ০৫ মার্চ ২০২১
Online Edition

মওলানা ভাসানী শেখ মুজিবের ফ্যাসিবাদের বিরুদ্ধে আন্দোলন করেছিলেন -------- আ স ম রব

স্টাফ রিপোর্টার : শেখ মুজিবের ফ্যাসিবাদের বিরুদ্ধে মওলানা ভাসানী আন্দোলন করেছেন জানিয়ে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল জে এস ডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন, আগরতলা মামলা থেকে শেখ মুজিবকে রক্ষা করেছিলেন মওলানা ভাসানী। আবার শেখ মুজিব ক্ষমতায় গিয়ে যখন ফ্যাসিবাদী আচরণ শুরু করেন তখন এর বিরুদ্ধে আন্দোলন করেন ভাসানী। বর্তমান সরকার ফ্যাসিবাদী আচরণ করছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, শেখ হাসিনার সরকার জনগণকে বাদ দিয়ে ক্ষমতায় বসে আছে। কিন্তু তাদের জানা উচিত জনগণকে প্রত্যাখ্যান করে ক্ষমতায় বসে থাকা বিপজ্জনক। তাদের জানা উচিত অতীতে যারা এরকম করেছে সবাইকে বিদায় নিতে হয়েছে। আল্লাহ তায়ালাও বলেছেন, আমি অত্যাচারীদের দীর্ঘস্থায়ী করি না।  
গতকাল বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি বাংলাদেশ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ ফারুকুল ইসলাম সভার সভাপতিত্ব করেন।
দেশ একটা জাহান্নামে পরিণত হয়েছে মন্তব্য করে রব বলেন, সাধারণ জনগণের মনে জাহান্নামের আগুন জ্বলছে। অথচ সরকার আত্মতুষ্টিতে ভুগছে। বাংলাদেশ মিছিল মিটিংয়ের দেশ। অথচ কিছুই করা যাচ্ছে না। মানুষের মনে যে আগুন জ্বলছে তার বিস্ফোরণ ঘটলে খবর আছে। তিনি প্রধানমন্ত্রীকে সাধারণ মানুষের আর্তনাদ শোনার আহ্বান জানান।
আ স ম রব উল্লেখ করেন, পৃথিবীতে এমন কোন দেশ খুঁজে পাবেন না যেখানে ৫ বছরের শিশু ধর্ষিত হয়। তিনি বলেন, বাংলাদেশ এখন আর বসবাসের উপযোগী নয়। প্রতিটি ঘরে আতংক। পুলিশি রাষ্ট্রের প্রতিটি উপাদান আজ বিদ্যমান। তিনি সরকারের উদ্দেশ্যে বলেন যে পুলিশ দিয়ে জাল ভোট দেওয়ার ব্যবস্থা করেছেন সেই পুলিশ দিয়ে কোনভাবেই আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা করা অসম্ভব।
তিনি রসিকতা করে বলেন, আজ কিছু ঘটলেই দোষ বিরোধী দলের ঘাড়ে চাপায়। নাসিরনগরে অন্তদ্বর্ন্দ্বের কারণে হিন্দু বাড়িতে হামলা হলো আর দোষ বিরোধী দলের। গাইবান্ধায় সাঁওতালদের সঙ্গে সংঘর্ষ হলো সেই দোষও বিরোধী দলের। ভারত থেকে হাতি আসলো তাও বিরোধী দলের কারসাজি। আওয়ামী লীগের কিছু লোক আছে কিছু ঘটলেই বিরোধী দলকে দায়ী করার জন্য বসে থাকে। এই যদি হয় অবস্থা তাহলে আইন আদালতের দরকার কি?
তিনি বলেন বৃটিশদের বিরুদ্ধে এই সাঁওতালরা তীর ধনুক দিয়ে যুদ্ধ করেছে। অথচ বৃটিশরা তাদের গুলী করে মারেনি, উচ্ছেদ করেনি। কিন্তু আজ মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সরকার তাদের গুলী করে হত্যা করছে। তাদের জমিতে কাঁটা তারের বেড়া দিচ্ছে। আরে ভাই... সাঁওতালদের জমিতে কাঁটা তারের বেড়া না দিয়ে সীমান্তে কাঁটা তারের বেড়া দেন না কেন ?
বিদেশীদের আশীর্বাদের জন্য এসব করা হচ্ছে উল্লেখ করে জে এস ডি সভাপতি বলেন, আজ সস্তা বুলির রাজনীতি চলছে। ব্যবসার রাজনীতি। অথচ মওলানা ভাসানী বিদেশীদের বলতেন, আমরা নিজেদের কাপড় খুলে দিয়ে বিদেশীদের সঙ্গে খাতির করতে পারি না।
নাসিরনগর নিয়ে সরকার কিংবা মিডিয়া যাই বলুক না কেন তরুণদের বোকা বানানো যাবে না। ইন্টারনেটের কল্যাণে তারা সঠিক বিষয় জেনেই যাবে।
মওলানা ভাসানীকে ইতিহাস থেকে মুছে ফেলার চেষ্টা করা হচ্ছে মন্তব্য করে স্বাধীন দেশের প্রথম পতাকা উত্তোলনকারী বলেন ৪৮,৫২,৬৪,৬৯’র আন্দোলন ছাড়াও আওয়ামী লীগ এবং দৈনিক ইত্তেফাকের প্রতিষ্ঠাতা সবখানেই ভাসানীকে এড়িয়ে যাওয়া হচ্ছে। ভাসানীকে জীবন্ত করে রাখতে তার সম্পর্কে আরও বই লেখার আহ্বান জানান তিনি।
গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার দাবিতে ২৬ নভেম্বর শহীদ মিনার এবং জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সমমনা ১১ দল মানববন্ধন করবে জানিয়ে জে এস ডি সভাপতি বলেন, আমরা আবারো গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার একদফা দাবিতে নতুন করে আওয়াজ তুলবো।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ