ঢাকা, সোমবার 24 January 2022, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২০ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

মন্ত্রী পরিষদ গঠনে ব্যস্ত ট্রাম্প

অনলাইন ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের নব নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প এবং নব নির্বাচিত ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স তাদের নতুন সরকারের গুরুত্বপর্ণ পদে নিযুক্তি বিষয়ে মঙ্গলবার বৈঠক করছেন। সহকারীরা এমন আভাষ দিচ্ছেন যে নিউ ইয়র্কের সাবেক মেয়র রুডি জিলিয়ানিকে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রী পদে নিয়োগ দেওয়া হতে পারে।

২০শে জানুয়ারি তাঁরা ক্ষমতা গ্রহণের সময়ে ট্রাম্প এবং পেন্সকে যুক্তরাষ্ট্রের সরকারে চার হাজারের ও বেশি পদে নিয়োগ দিতে হবে। তবে তাঁদের তাৎক্ষনিক মনযোগ হচ্ছে শীর্ষ এই কুটনৈতিক পদ পূরণ করা । তাছাড়াও রয়েছে , প্রতিরক্ষা মন্ত্রী, অ্যাটর্নি জেনারেল এবং স্বরাষ্ট্র নিরাপত্তা প্রধানের পদেও নিয়োগ দেওয়া । এ সব পদই সরকারকে বিশ্বের সামনে উপস্থাপন করবে এবং সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের লড়াইয়ে নের্তৃত্ব দিতে সাহায্য করবে।

৭২ বছর বয়সী জিলিয়ানির পররাষ্ট্র নীতি সম্পর্কে আগের কোন অভিজ্ঞতা নেই কিন্তু ট্রাম্পের সহযোগিরা বলছেন তিনি খুব অল্পের জন্যে পররাষ্ট্র মন্ত্রী হিসেবে বাছাইয়ে রয়েছেন। তিনি ট্রাম্পের দীর্ঘ নির্বাচনী লড়াইয়ে একজন বিশ্বস্ত সমর্থক ছিলেন এবং প্রায়শই টেলিভিশনে সংবাদে ট্রাম্পের প্রার্থিতাকে তুলে ধরেছেন। তবে জিলিয়ানির নিয়োগ এখন ও চূড়ান্ত নয় ।

ট্রাম্পের সহযোগিরা বলছেন যে নব নির্বাচিত প্রেসিডেন্টের বিবেচনায় আরও কয়েকজনের নাম রয়েছে । এদের মধ্যে আছেন সামরিক শক্তি প্রয়োগের সমর্থক সাবেক কুটনীতিক জন বল্টন, যিনি প্রেসিডেন্ট জর্জ ডব্লি্উ বুশ ‘এর সময়ে জাতিসংঘে যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত ছিলেন । তিনি প্রেসিডেনন্ট বারাক ওবামার পররাষ্ট্র নীতির একজন সমালোচক। জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা হিসেবে পছন্দের তালিকায় রয়েছেন, যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা দপ্তরের প্রাক্তন অধিকর্তা সেনাবাহিনীর জেনারেল মাইকেল ফ্লিন এবং অ্যালাবামার সেনেটর জেফ সেশান্স প্রতিরক্ষা মন্ত্রী কিংবা অ্যাটর্নি জেনারেল পদে নিযুক্ত হতে পারেন। সূত্র: ভয়েস অব আমেরিকা। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ