ঢাকা, মঙ্গলবার 22 September 2020, ৭ আশ্বিন ১৪২৭, ৪ সফর ১৪৪২ হিজরী
Online Edition

মার্কিন নির্বাচনে মিশেল ওবামার ভূমিকা

অনলাইন ডেস্ক: মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আর মাত্র ১৫ দিন বাকি। ডেমোক্র্যাট ও রিপাবলিকান দুই প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন ও ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রচারণায় সারা দেশের আনাচে কানাচে যাচ্ছেন।

কিন্তু এই প্রচারণায় রয়েছেন আরো একজন যাকে দেখতে হাজার হাজার ডেমোক্র্যাট সমর্থক জড়ো হচ্ছেন।

আর তিনি হলেন ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা। যাকে এখন বলা হচ্ছে ডেমোক্র্যাটদের প্রচারণার গুরুত্বপূর্ণ অস্ত্র। সেটার কারণ কি?

সাউথ ক্যারোলাইনা স্টেট ইউনিভার্সিটির সাংবাদিকতা বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ড শফিকুর রহমান এর কয়েকটি কারণের কথা উল্লেখ করছিলেন।

তিনি বলছিলেন হিলারি ক্লিনটনের প্রতি সাধারণ জনগণ এবং অনেক ডেমোক্র্যাট বিশ্বাসের ক্ষেত্রে একটা প্রশ্ন তুলেছেন। "বিশেষ করে উইকিলিকসে তাঁর লিক হয়ে যাওয়া কিছু ইমেইলে তিনি এমন কিছু কথা-বার্তা লিখেছেন যেটা সমসময় বিশ্বাসযোগ্য নয়" বলছিলেন মি. রহমান।

ঐ অবস্থাটা পরিবর্তন করার জন্য প্রেসিডেন্ট ওবামা নিজে এবং মিশেল ওমাবা ব্যাপক ভাবে চেষ্টা করছেন।

এক অর্থে হিলারি ক্লিনটনে দুর্বল অবস্থান গুলোকে সামাল দেয়ার চেষ্টা করছেন মিশেল ওবামা।

গত ত্রিশ চল্লিশ বছরে আমেরিকার কোন ফার্স্ট লেডি নির্বাচনী প্রচারণায় এত ব্যাপক ভাবে কাজ করেন নি। মিশেল ওবামা উচ্চ শিক্ষিত, সাধারণ মানুষের কাছে হিলারি ক্লিনটনের চেয়ে বেশি জনপ্রিয় তিনি - বলছিলেন মি. রহমান।

মিশেল ওবামাকে হিলারি ক্লিনটনের প্রচারণার সবচেয়ে বড় এ্যাসেট, সিক্রেট ওয়েপন বা গোপন অস্ত্র বলা হচ্ছে। মি. রহমান বলছিলেন "মিশেল ওবামা ইয়াংদের মধ্যে খুব পপুলার। হিলারি তরুণদের ভোট পাচ্ছে না। তাদের ভোট টানতে, বিশেষ করে মিলেনিয়াম ভোটারদের দলে টানতে মিশেল কাজ করবে।

ফ্যাশন সচেতন হিসেবেও তিনি ভীষন জনপ্রিয়। অল্প খরচে ফ্যাশনেবল পোশাকের প্রতি মধ্যবিত্তকে আকৃষ্ট করতে ফ্যাশন ডিজাইনাররা তাকে নিয়ে কাজ করছে। এটাও কাজে লাগাচ্ছে ডেমোক্রেটরা"।

ভার্জিনিয়া নর্থ ক্যারোলাইনা এবং অ্যারিজোনায় গত চার পাঁচ দিন ধরে প্রচারণা চালাচ্ছেন মিশেল ওবামা । -বিবিসি বাংলা

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ