ঢাকা, শনিবার 26 September 2020, ১১ আশ্বিন ১৪২৭, ৮ সফর ১৪৪২ হিজরী
Online Edition

নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে সুজানগরে অবাধে জাটকা নিধন এবং বিক্রি

অনলাইন ডেস্ক: নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে পাবনার সুজানগরে বাচ্চা ইলিশ জাটকা মাছ ধরা হচ্ছে এবং বিভিন্ন হাট-বাজারে তা অবাধে বিক্রিও করা হচ্ছে। উপজেলা মৎস্য বিভাগের উদাসীনতার সুযোগে কতিপয় অসাধু মৎস্য ব্যবসায়ী ও মৎস্যজীবিরা জাটকা নিধন এবং বিক্রি করছে। 

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলায় ৪/৫জন বড় মৎস্য ব্যবসায়ী রয়েছে। এসব মৎস্য ব্যবসায়ীরা সরকারের মৎস্য আইনকে উপেক্ষা করে বছরের বিভিন্ন সময় হাজার হাজার মণ জাটকা ইলিশ আমদানি করে থাকে। তারা কখনও বরিশাল আবার কখনও চট্টগ্রাম থেকে ওই ইলিশ এনে তাদের মনোনীত মৎস্যজীবিদের মাধ্যমে সুজানগর পৌর বাজারসহ উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে চড়া দামে বিক্রি করে। তবে তারা অন্য সময় স্বল্প পরিমাণে ওই ইলিশ আমদানি করলেও বর্তমানে ব্যাপকভাবে আমদানি করছে। 

স্থানীয় হালদাররা জানায়, সরকার আগামী ১২ অক্টোবর থেকে ২ নভেম্বর পর্যন্ত মা ইলিশ শিকার ও বিক্রির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। আর একারণে মৎস্য ব্যবসায়ীরা ওই সময়ের কথা চিন্তা করে ব্যাপকভাকে জাটকা ও মা ইলিশ আমদানি করছে। মৎস্য ব্যবসায়ীরা প্রত্যেক দিন সকাল ৮/৯টার দিকে ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহনযোগে বরিশাল ও চট্টগ্রাম থেকে ওই ইলিশ আমদানি করে কতিপয় অসাধু মৎস্যজীবীর মাধ্যমে পৌর বাজারসহ উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে বিক্রি করছে। প্রতিকেজি জাটকা ইলিশ তিন থেকে সাড়ে তিন‘শ টাকা দরে বিক্রি করছে। বিশেষ করে অজ্ঞাত কারণে উপজেলা মৎস্য বিভাগ এ ব্যাপারে কোন পদক্ষেপ না নেওয়ায় মৎস্য ব্যবসায়ী ও মৎস্যজীবীরা অবাধে ওই মাছ বিক্রি করছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ