ঢাকা, সোমবার 24 January 2022, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২০ জমাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

বিক্রি হচ্ছে ট্যুইটার?

অনলাইন ডেস্ক: মাইক্রো-ব্লগিং স্যোসাল সাইট টুইটারের মালিকানা বদল হতে চলেছে।ট্যুইটারের বর্তমান কর্তৃপক্ষ সাইটটি বিক্রি করে দেয়ার পরিকল্পনা নিয়ে বিভিন্ন টেক কোম্পানির সঙ্গে কথাবার্তা চালিয়ে যাচ্ছেন বলেও জানা গেছে।

২০০৬ সালে টুইটার একটি স্যোসাল মিডিয়া কোম্পানি হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের সানফ্রান্সিসকো থেকে যাত্রা শুরু করে। বর্তমানে সারা বিশ্বে এর ২৫টি অফিস রয়েছে।২০০৬ সালের মাচ মাসে চার বন্ধু জ্যাক দরসী, ইভান উইলিয়ামস, বিজ স্টোন এবং নূহ গ্লাস 'টুইটার' নামক স্যোসাল মিডিয়া গঠন করেন; একটি কোম্পানি হিসেবে এর যাত্রা শুরু হয়।যাত্রার পর থেকেই দ্রুত এর জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকে।২০১২ সালেই টুইটারের ইউসারের সংখ্যা দাঁড়ায় ১শ মিলিয়ন। সে সময়ই এই সাইটটিতে প্রতিদিন ৩৪০ মিলিয়ন পোস্ট করা হত।আর প্রতিদিন সার্চ কোয়েরি হ্যান্ডল করা হত ১.৬ বিলিয়ন। ২০১৩ সালে টুইটার বিশ্বের শীর্ষ ১০ মোস্ট ভিজিটেট ওয়েবসাইটের মর্যাদা লাভ করে। এ সময় এটি ইন্টারনেটের এসএমস খ্যাতি লাভ করে। চলতি বছরের মার্চ মাস নাগাদ টুইটারের মাসিক একটিভ ইউজার সংখ্যা হল ৩১০ মিলিয়ন।

জানা গেছে, কর্তপক্ষ টুইটার বিক্রি করতে গুগল ছাড়াও ক্লাউড কম্পিউটিং কোম্পানি সেলসফোর্সের সঙ্গে কথা বলেছে। শোনা যাচ্ছে, খুব শিগগিরই আনুষ্ঠানিকভাবে নিলামে উঠতে চলেছে ট্যুইটার।

গত এক দশক ধরে তাদের সংগ্রহে যে ডেটা রয়েছে, মনে করা হচ্ছে সেই ডেটার টানেই গুগলের মতো সম্ভাব্য ক্রেতারা ট্যুইটার কিনতে আগ্রহী হবে।

সোশ্যাল এই সাইটি বিক্রি করে দেওয়ার পরিকল্পনা থাকলেও ট্যুইটার কর্তৃপক্ষ  কিন্তু এখনো সোশ্যাল ভিডিওর মতো নতুন কিছু নিয়ে আসছে। তারপরেও যেটা হয়েছে, গত দু-বছরে ট্যুইটারের সক্রিয় ইউজার সে অর্থে বাড়েনি। বর্তমানে তাদের অ্যাকটিভ ইউজার ৩১৩ মিলিয়ন। একই জায়গায় দাঁড়িয়ে। তার উপর আবার আগের তুলনায় লভ্যাংশও কিছুটা কমেছে।

ডি.স/আ.হু

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ