ঢাকা, সোমবার 19 April 2021, ৬ বৈশাখ ১৪২৮, ৬ রমযান ১৪৪২ হিজরী
Online Edition

১৫ বছর পর ফিলিস্তিনে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে নির্বাচন

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস দেশটির জাতীয় সংসদ ও প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচন অনুষ্ঠানের ডিক্রি জারি করেছেন। তবে নির্বাচনের সুনির্দিষ্ট তারিখ এখনো ঘোষণা করা হয় নি।

১৫ বছর পর ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকা এবং পশ্চিম তীরে এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। নির্বাচনে মাহমুদ আব্বাসের নেতৃত্বাধীন ফাতাহ আন্দোলন এবং গাজাভিত্তিক ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের মধ্যে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে।

২০০৬ সালে ফিলিস্তিনে সর্বশেষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছিল এবং সে নির্বাচনে গাজাভিত্তিক হামাস ভূমিধস বিজয় লাভ করে। তার আগে থেকেই ফিলিস্তিনের রাজনৈতিক শক্তি মূলত ফাতাহ এবং হামাসের মধ্যেই বিভক্ত। অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় হামাসের মূল তৎপরতা এবং ফাতাহ আন্দোলনের তৎপরতা স্বায়ত্তশাসিত পশ্চিম তীরে।

গত এক দশক ধরে দুই দলই নির্বাচন অনুষ্ঠানের দাবি জানিয়ে আসছিল কিন্তু নির্বাচন অনুষ্ঠানের মতো পরিবেশ নিশ্চিত করার ব্যাপারে দু'দল কখনো একমত হতে পারে নি।

প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস নতুন করে নির্বাচনের ঘোষণা দেয়ার পর হামাস একে স্বাগত জানিয়েছে এবং নির্বাচনের প্রক্রিয়া সফল হওয়ার ব্যাপারে তাদের জোরালো আগ্রহের কথা ব্যক্ত করেছে।

হামাস এক বিবৃতিতে বলেছে, “গত কয়েক মাস ধরে আমরা সমস্ত বাধা পার হওয়ার জন্য নানা রকমের সংলাপ করেছি এবং আমাদের পক্ষ থেকে অনেক উদারতা দেখিয়েছি। এরপরই আজকের এ দিনে উপনীত হতে পেরেছি।” হামাস তাদের বিবৃতিতে নির্বাচন অনুষ্ঠানের আগে আরো সংলাপের আহ্বান জানিয়েছে।-পার্স টুডে

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ