বুধবার ২০ অক্টোবর ২০২১
Online Edition

দৈনন্দিন জীবনে রাসূলে করীম (সা.) এর সুন্নাহ প্রতিষ্ঠা করতে হবে

রাউজান বায়তুশ শরফ কমপ্লেক্স এর উদ্যোগে অনুষ্ঠিত বিশাল সিরাতুন্নবী (সা.) মাহফিল ও বায়তুশ শরফ মাদরাসা ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছেন বায়তুশ শরফের পীর আল্লামা শাহ মুহাম্মদ আবদুল হাই নদভী, মাওলানা মামুনুর রশীদ নূরী, উপজেলা চেয়ারম্যান এহেছানুল হায়দার চৌধুরী বাবুল, মোঃ জমির উদ্দিন পারভেজ        -সংগ্রাম

চট্টগ্রাম ব্যুরো: বায়তুশ শরফের পীর, বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক আল্লামা মোহাম্মদ আবদুল হাই নদভী বলেছেন, মুসলিম উম্মাহকে প্রতিনিয়ত রাসূলে করীম (সা.) এর আদর্শ ও সুন্নাহ পালন করা একান্ত কর্তব্য। আমরা রাসূল (সা.)কে ভালবাসি কিন্তু তার সুন্নাহ পালন করতে যথেষ্ট সচেতন নয়। তাই জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে রাসূলের সুন্নাহ প্রতিষ্ঠা করতে আমাদের ঐকান্তিক প্রচেষ্টা চালাতে হবে।

পীর সাহেব আরো বলেন, এবাদত কবুল হওয়ার পূর্ব শর্ত হচ্ছে শিরক ও বিদআত মুক্ত জীবন গঠন করা। সমাজ থেকে শিরক ও বিদআত মুক্ত করতে আমাদেরকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। শিরক ও বিদআত মুক্ত সমাজ বিনির্মাণে বায়তুশ শরফ  সারাদেশে কাজ করে যাচ্ছে। বায়তুশ শরফের সাথে সম্পৃক্ত হয়ে খোদাভীতি অর্জনের মাধ্যমে পরকালীন মুক্তি নিশ্চিত করার জন্য তিনি যুব সমাজের প্রতি আহ্বান জানান।

রাউজান বায়তুশ শরফ কমপ্লেক্স এর উদ্যোগে শরীফ পাড়ায় অনুষ্ঠিত বিশাল সিরাতুন্নবী (সা.) মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আল্লামা আবদুল হাই নদভী উপরোক্ত কথা বলেন।

বিশিষ্ট সমাজ সেবক রাউজান উপজেলা চেয়ারম্যান এহেছানুল হায়দার চৌধুরী বাবুল এর সভাপতিত্বে ও আনজুমনে ইত্তেহাদের সাধারণ সম্পাদক হারুন উর রশীদ ও কমপ্লেক্স এর সভাপতি মুহাম্মদ কামাল উদ্দিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠিত সিরাতুন্নবী (সা.) মাহফিল ও বায়তুশ শরফ জব্বারিয়া আদর্শ মাদরাসার ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন উপলক্ষে আয়োজিত মাহফিলে প্রধান বক্তা ছিলেন মজলিসুল ওলামা বাংলাদেশের মহাসিচব মাওলানা মামুনুর রশীদ নূরী, বিশেষ অতিথি ছিলেন রাউজান পৌরসভার প্যানেল মেয়র মো: জমির উদ্দিন পারভেজ, বায়তুশ শরফ আনজুমনে নওজোয়ানের কেন্দ্রীয় সভাপতি মাওলানা আবুল কালাম আজাদ, ৫ নং রাউজানের কমিশনার জানে আলম জনি, বায়তুশ শরফ মসজিদের খতিব মাওলানা আহমদ কবীর ও মাওলানা নাছির উদ্দিন। উপস্থিত ছিলেন আনজুমনে ইত্তেহাদের সহসভাপতি অধ্যাপক শফিউর রহমান, আনজুমনে নওজোয়ানের সহসভাপতি শাহজাদা আবদুল কাইয়ুম, মাওলানা মুহিব্বুর রহমান, মাওলানা মফিজ উদ্দিন প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন আন্জুমনে নওজোয়ানের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা আবু ছালেহ ও আবদুশ শুক্কুর প্রমুখ।

মাওলানা মামুনুর রশীদ নূরী বলেন, বায়তুশ শরফ প্রচলিত দরবারের মতো কোন দরবার নয়, এ দরবার সম্পূর্ণ ইসলামী শরীয়াতের উপর ভিত্তি করে পরিচালিত একটি দরবার। বাতিলের বিরুদ্ধে বায়তুশ শরফ দরবারের পীরদের ভূমিকা প্রশংসার দাবীদার।  বর্তমান পীর সাহেবও পূর্বের পীরদের অনুস্মরণ করে বায়তুশ শরফ দরবার পরিচালনা করে যাচ্ছেন। তিনি বর্তমান হুজুরের সুদীর্ঘ হায়াত কামনা করেন। তিনি আরো বলেন, মুসলমানদেকে পারস্পরিক পরামর্শের ভিত্তিতে সমাজ ও দেশে রাসূলের আদর্শ বাস্তবায়নে সকল মুসলিম উম্মাহকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান।

সভাপতির বক্তব্যে এহেছানুল হায়দার বাবুল, রাউজান উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের লোকদেরকে ইসলামের সঠিক আদলে পরিচালিক দরবার বায়তুশ শরফের আঙ্গিনায় ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান। অনুষ্ঠানে  বায়তুশ শরফের রাহবার আল্লামা শাহ আবদুল হাই নদভীকে রাউজান উপজেলার বিভিন্ন শাখার নেতৃবৃন্দ ও সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের পক্ষে ক্রেষ্ট দিয়ে সম্মাননা প্রদান করা হয়। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ