শনিবার ৩১ অক্টোবর ২০২০
Online Edition

বঙ্গবন্ধু প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে এবার ৯১টি কম্পিউটার চুরি

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) গ্রন্থাগার থেকে এবার ৯১টি কম্পিউটার চুরির ঘটনা ঘটেছে। এর আগে আরও দুবার চুরির ঘটনা ঘটেছিল। বন্ধ হলেই এই বিশ্ববিদ্যালয়টিতে চুরির ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ রয়েছে। একটি ঘটনায় মামলা হলেও কোনো আসামিকে শনাক্ত করা যায়নি।

চলতি চুরির ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানা গেছে। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. মো. নূরউদ্দিন আহমেদ জানিয়েছেন, ছুটি শেষে আজ (সোমবার) বিশ্ববিদ্যালয়ের কার্যক্রম শুরু হওয়ার পর বিষয়টি সম্পর্কে কর্তৃপক্ষ অবগত হয়। এসময় দেখা যায় লাইব্রেরির পেছনের দিকের জানালা ভেঙে কম্পিউটারগুলো চুরি হয়। লাইব্রেরি কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে মোট ৯১টি কম্পিউটার চুরি হয়েছে।

চুরির ঘটনায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানিয়েছেন নূরউদ্দিন আহমেদ।

বশেমুরবিপ্রবির সহকারী নিরাপত্তা কর্মকর্তা তরিকুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা চুরির বিষয়ে জানার পর বিশ্ববিদ্যালয়ের সিসিটিভি ফুটেজ চেক করেছি। সিসিটিভিতে ২৭ জুলাই থেকে আজ পর্যন্ত সব ভিডিও ফুটেজ রয়েছে। এসময়ে কোনো চুরির ঘটনা ঘটেনি। আর এর আগে ২০ তারিখ উপাচার্য (রুটিন দায়িত্ব) মহোদয় লাইব্রেরি পরিদর্শন করেছিলেন। তখনও সকল কম্পিউটার যথাস্থানে ছিলো। তাই আমরা ধারণা করছি ২০ থেকে ২৭ তারিখের মধ্যবর্তী সময়ে এই চুরির ঘটনা ঘটেছে।’

তরিকুল ইসলাম আরও জানান, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩০ জন প্রহরীর মধ্যে ২০ জন ২৩ তারিখ থেকে কোনো নির্দিষ্ট কারণ না জানিয়ে অনুপস্থিত ছিলেন। তাই নিরাপত্তাজনিত কিছুটা সমস্যা ছিল। তবে আমরা চেষ্টা করেছি অবশিষ্ট প্রহরী ও আনসারদের সমন্বয়ে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ