রবিবার ২৫ অক্টোবর ২০২০
Online Edition

কটিয়াদির প্রবীণ রুকন আঃ মান্নানের ইন্তিকাল

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সদস্য (রুকন) কিশোরগঞ্জ জেলার কটিয়াদি উপজেলা নিবাসী মোঃ আবদুল মান্নান ৭০ বছর বয়সে বার্ধক্যজনিত কারণে গত বুধবার সকালে ইন্তিকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি দীর্ঘদিন যাবত প্যারালাইসিসে ভুগছিলেন। তিনি স্ত্রী, ৪ পুত্র ও ২ কন্যাসহ বহু আত্মীয়-স্বজন রেখে গিয়েছেন। ৫ ফেব্রুয়ারি বিকালে স্থানীয় হাইস্কুল মাঠে সালাতে জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। মোঃ আবদুল মান্নানের বড় ছেলে মোবারক হোসেনের ইমামতিতে সালাতে জানাজায় অংশগ্রহণ করেন কিশোরগঞ্জ জেলা জামায়াতের আমীর অধ্যাপক মোঃ রমজান আলী, সাবেক জেলা আমীর অধ্যক্ষ মাওলানা মোঃ তৈয়বুজ্জামান, জেলা সেক্রেটারি মাওলানা নাজমুল ইসলাম, জেলা কর্মপরিষদ সদস্য মোঃ ফজলুল হক, কটিয়াদি উপজেলা আমীর অধ্যাপক মোজাম্মেল হক জোয়ারদার, বিএনপির উপজেলা সেক্রেটারি আরিফুর রহমান কাঞ্চনসহ বহু মুসুল্লী। 

মোঃ আবদুল মান্নানের ইন্তিকালে গভীর শোক প্রকাশ করে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমীর ডাঃ শফিকুর রহমান গতকাল বৃহস্পতিবার এক শোকবাণী প্রদান করেছেন। 

শোকবাণীতে তিনি বলেন, মোঃ আবদুল মান্নান (রাহিমাহুল্লাহ)Ñকে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা ক্ষমা ও রহম করুন এবং তাকে নিরাপত্তা দান করুন। তাকে সম্মানিত মেহমান হিসেবে কবুল করুন ও তার কবরকে প্রশস্ত করুন। তার গুণাহখাতাগুলোকে নেকিতে পরিণত করুন। তার জীবনের নেক আমলসমূহ কবুল করে তাকে জান্নাতুল ফিরদাউসে স্থান দান করুন। 

তার শোক-সন্তপ্ত পরিবার-পরিজনদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়ে শোকবাণীতে তিনি বলেন, আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা তাদেরকে এ শোকে ধৈর্য ধারণ করার তাওফিক দান করুন। 

অপর এক যুক্ত শোকবাণীতে কিশোরগঞ্জ জেলা জামায়াতের আমীর অধ্যাপক মোঃ রমজান আলী ও কটিয়াদি উপজেলা আমীর অধ্যাপক মোজাম্মেল হক জোয়ারদার গভীর শোক প্রকাশ করে মোঃ আবদুল মান্নানের জীবনের সকল নেক আমল কবুল করে তাকে জান্নাতবাসী করার জন্য মহান আল্লাহ তায়ালার দরবারে দোয়া করেন এবং তার শোক-সন্তপ্ত পরিবার-পরিজনদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়ে বলেন, আল্লাহ রাব্বুল আলামীন তাদের এ শোক সহ্য করার তাওফীক দান করুন।

একরামুল হকের ইন্তিকাল : বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর প্রবীণ সদস্য (রুকন) নীলফামারী জেলার সদর উপজেলার পঞ্চপুকুর ইউনিয়ন নিবাসী মাওলানা একরামুল হক ৭২ বছর বয়সে বার্ধক্যজনিত কারণে গত বুধবার রাতে ইন্তিকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি স্ত্রী, ৬ পুত্র ও ৪ কন্যাসহ বহু আত্মীয়-স্বজন রেখে গিয়েছেন। ৬ ফেব্রুয়ারি বেলা ২টায় ফকিরের ডাঙ্গা মাঠে সালাতে জানাজা শেষে তাকে দাফন করা হয়েছে।

শোকবাণী : মাওলানা একরামুল হকের ইন্তিকালে গভীর শোক প্রকাশ করে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমীর ডাঃ শফিকুর রহমান ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০ এক শোকবাণী প্রদান করেছেন। 

শোকবাণীতে তিনি বলেন, মাওলানা একরামুল হক (রাহিমাহুল্লাহ)Ñকে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা ক্ষমা ও রহম করুন এবং তাকে নিরাপত্তা দান করুন। তাকে সম্মানিত মেহমান হিসেবে কবুল করুন ও তার কবরকে প্রশস্ত করুন। তার গুণাহখাতাগুলোকে নেকিতে পরিণত করুন। তার জীবনের নেক আমলসমূহ কবুল করে তাকে জান্নাতুল ফিরদাউসে স্থান দান করুন। 

তার শোক-সন্তপ্ত পরিবার-পরিজনদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়ে শোকবাণীতে তিনি বলেন, আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা তাদেরকে এ শোকে ধৈর্য ধারণ করার তাওফিক দান করুন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ