বুধবার ২৫ মে ২০২২
Online Edition

সাতক্ষীরায় জনবল সংকট নিয়ে শুরু হলো ভারতীয় ভিসা সেন্টারের কার্যক্রম

সাতক্ষীরা সংবাদদাতাঃ ৫টি ডেস্ক নিয়ে সাতক্ষীরায় চালু হলো ভারতীয় ভিসাভৈল সেন্টারের কার্যক্রম। আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ছাড়াই গতকাল রবিবার থেকে শুরু হয়েছে এ কার্যক্রম। ভিসা সেন্টার চালু হওয়ায় ভারতে গমন ইচ্ছুক সাতক্ষীরাবাসী স্বতঃস্ফূর্তভাবে তাদের কাগজপত্র জমা দিচ্ছেন।
বর্তমানে দুটি কাউন্টারে ভিসার কাগজপত্র জমা নেওয়া হচ্ছে। ভারতীয় ভিসা সেন্টার কর্তৃপক্ষ এখানকার পরিবেশ অনুকূলে জানিয়ে তাদের জনবল কমের কথা জানিয়েছেন।
হাইকমিশন সূত্রে জানা গেছে, প্রান্তিক ও দূরবর্তী এলাকায় বসবাসকারী বাংলাদেশী নাগরিকদের ভারতীয় ভিসা চাহিদা পূরণ ও ভিসা পাওয়া আরো সহজ করার লক্ষ্যে ঠাকুরগাঁও, বগুড়া, কুমিল্লা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, নোয়াখালী ও সাতক্ষীরাসহ আরো ৬টি ভিসার আবেদন কেন্দ্র চালু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এতদিন বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে নয়টি ভারতীয় ভিসা আবেদন কেন্দ্র চালু ছিল। নতুন এই ছয়টি নতুন ভিসা আবেদন কেন্দ্র চালু হওয়ায় এর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে মোট ১৫টিতে। এতে সহযোগিতা করছে ভারতীয় স্টেট ব্যাংক।
সাতক্ষীরার ভিসা অফিসের ইনচার্জ মৃনাল কান্তি ঘোষ জনবল কমের কথা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘সাতক্ষীরার পরিবেশ ভাল। সুষ্ঠু ও সুশৃংখলাবদ্ধভাবে এখানে ভিসার কাগজপত্র জমা নেওয়া হচ্ছে। এখন থেকে আর যশোর, খুলনায় ভিসা করতে যাওয়া লাগবে না। এতে ভিসার আবেদন প্রার্থীদের একদিকে যেমন সময় বাচবে, অপরদিকে, অর্থেরও সাশ্রয় হবে।
ভিসা কেন্দ্র স্থাপন হওয়ায় জেলাসহ আশেপাশের জেলার মানুষ খুব সহজে ভারতে গমনের জন্য ভিসার কাজ খুব সহজে শেষ করতে পারবেন বলে আশাবাদী। সাতক্ষীরা সদর উপজেলা পরিসদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আসাদুজ্জামান বাবু বলেন, ভারতীয় ভিসা কেন্দ্র চালু হওয়াতে মানুসের ভারত ভ্রমণ আরো সহজ হবে।
ভারতীয় হাই কমিশন সূত্রে জানা যায় ইউক্যাশের এর মাধ্যমে ভিসা ফি জমা দিয়ে আবেদন ফরম জমা দানের মাধ্যমে ভোগান্তি ছাড়াই ৭ থেকে ১০ দিনের মধ্যেই এই কেন্দ্র্র্র থেকে কাঙ্খিত সেবা পাওা যাবে। এর আগে সাতক্ষীরা বাসীর ভারতীয় ভিসার আবেদন জমা দেওয়া ও ভিসা প্রাপ্তির জন্য যশোর অথবা খুলনায় যেতে হতো। সাতক্ষীরায় ভিসা সেন্টার চালু হওয়াতে সাতক্ষীরার বাসির ভোগান্তি অনেকটা কম হবে বলে মনে করেন এই জনপদের ভারত গামীরা। সূত্র আরো জানায়, সাতক্ষীরা থেকে প্রতি বছর হাজার হাজার মানুষ ভারতে চিকিৎসা, শিক্ষা, ব্যবসাসহ ভ্রমণের কাজ ভারতে গমন করে। তারা বিগত দিনে যশোর ও খুলনা থেকে ভিসা সংগ্রহ করতো। ফলে শ্রম ও অর্থ দুটোই বেশি ব্যয় হতো।
গত বছরের (২৯ সেপ্টেম্বর) শহরের মীর মহলে সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি ও ভারতীয় ডেপুটি হাই কমিশনার রাজেশ কুমার রাইনার মধ্যে বৈঠক শেষে সাতক্ষীরায় ইন্ডিয়ান ভিসা সেন্টার চালুর সিদ্ধান্ত নেয়ার কথা জানানো হয়।
 বৈঠকে ভারতীয় ডেপুটি হাই কমিশনার রাজেশ কুমার রাইনা জানান, সাতক্ষীরা সদরের এমপি মীর মোস্তাক আহমেদ রবি এ জেলাবাসীর সুবিধার্থে ইন্ডিয়ান ভিসা সেন্টার স্থাপনের কথা বলেছিলেন। তার কথা রাখতে সাতক্ষীরায় ইন্ডিয়ান ভিসা সেন্টার স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।
সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি বলেন,তার ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় সাতক্ষীরাতে সাতক্ষীরাতে ভারতীয় ভিসা সেন্টারের কার্যক্রম হয়েছে।
 তিনি আরো বলেন, ভিসা সেন্টারের কার্যক্রম শুরু হওয়াতে ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সুসম্পর্ক আরো হবে। বিভিন্ন ভারতীয় সেবা পাবে সাতক্ষীরা বাসী।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ