বুধবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

ফরিদপুরে বজ্রপাতে মা বাবা ও মেয়ে নিহত

 

ফরিদপুর সংবাদদাতা : জেলার চরভদ্রাসন উপজেলায় বজ্রপাতে একই পরিবারের তিনজনসহ চারজন এবং ফরিদপুর সদরে এক গৃহবধূ নিহত হয়েছেন। গতকাল রোববার বিকেল ৩টা থেকে ৪টার মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

চরভদ্রাসন উপজেলার সদর ইউনিয়নের চরমঈনূট ঘাট সংলগ্ন মাথাভাঙ্গা এলাকায় পদ্মা নদীর চরে বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে বিকেল ৪টার দিকে। এ ঘটনায় পাশাপাশি দুটি জমিতে কাজ করা অবস্থায় নিহত হয় চারজন। নিহতরা হলেন একই পরিবারের সদস্য বাবা শেখ আরজান (৪৫), মা আনোয়ারা বগম (৩৫) ও মেয়ে বিথী আক্তার (১৫)। অপরজন বিল্লাল মোল্লা (৪০)।

এলাকাবাসীরা জানায়, নিহতরা সকলে মাথাভাঙ্গা এলাকায় পাশাপাশি দুটি বাদাম ক্ষেত থেকে বাদাম তুলছিল। এ সময় বজ্রপাতের এ ঘটনা ঘটে। এর ফলে একই পরিবারের তিনজন ঘটনাস্থলেই নিহত হন। বিল্লালকে মুমূর্ষ অবস্থায় চরভদ্রাসন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চরভদ্রাসন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাম প্রসাদ ভক্ত বলেন, নিহতের মধ্যে একই পরিবারের তিনজন পাশের সদরপুর উপজেলার এবং একজন চরভদ্রসন উপজেলার বাসিন্দা।

এদিকে বিকেল ৩টার দিকে ফরিদপুর সদরের নর্থ চ্যানেলে বজ্রপাতে নিহত হয়েছেন গৃহবধূ নার্গিস আক্তার (২৬)। নার্গিস ইউনিয়নের কবিরপুর এলাকার হাজী জয়নাল আবেদীনের ডাঙ্গি গ্রামের রেজাউল বেগের স্ত্রী।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নর্থ চ্যানেল ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান মো. মোস্তাকুজ্জামান বলেন, নার্গিস ক্ষেত থেকে বাড়ি ফেরার পথে এ বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে। এর ফলে সে ঘটনাস্থলেই নিহত হয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ