সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

দ্বিতীয় টেস্ট জিতে সিরিজে ফিরলো ভারত

স্পোর্টস ডেস্ক : ১৮৮ রানের সহজ লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমেও হেরে গেল অস্ট্রেলিয়া। বেঙ্গালুরুতে দ্বিতীয় টেস্টে ৭৫ রানে জিতে চার ম্যাচ টেস্ট সিরিজে ১-১ এ সমতায় ফিরলো ভারত। রবিচন্দ্রন অশ্বিনের দুর্দান্ত ঘূর্ণিতে অজিরা নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ১১২ রানেই সবকটি উইকেট হারায়। শেষ ১১ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে সফরকারীরা।
১৮৮ রানের জয়ের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার করেন ১৭ রান। আরেক ওপেনার ম্যাট রেনশ করেন ৫ রান। তিন নম্বরে নামা দলপতি স্টিভেন স্মিথের ব্যাট থেকে আসে ২৮ রান। চার নম্বরে নেমে শন মার্শের ইনিংস শেষ হয় ৯ রানে। মিচেল মার্শ ১৩ রানে বিদায় নেন। আর ম্যাথু ওয়েডের ব্যাট থেকে কোনো রানই আসেনি। দলীয় ১০১ রানের মাথায় ষষ্ঠ উইকেট হারিয়ে দ্বিতীয় সেশন শেষ করে সফরকারীরা। শেষ দিকে পিটার হ্যান্ডসকম্ব একাই লড়ার ব্যর্থ চেষ্টা করেন। তবে ব্যক্তিগত ২৪ রানে তাকেও ঋদ্ধিমান শাহ’র ক্যাচে ফেরান অশ্বিন। ১২.৪ ওভার বল করে ৪১ রানের বিনিময়ে ৬টি উইকেট তুলে নেন ডানহাতি এ স্পিনার। দুটি উইকেট পান উমেশ যাদব। একটি করে উইকেট দখল করেন ইশান্ত শর্মা ও রবিন্দ্র জাদেজা। এর আগে ভারত চতুর্থ দিনের সকালে মাত্র ৬১ রান যোগ করতেই হারায় বাকি ৬ উইকেট। সব মিলিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ২৭৪ রান করে বিরাট কোহলিরা। ফলে অস্ট্রেলিয়ার সামনে জয়ের জন্য টার্গেট দাঁড়ায় ১৮৮!ভারত ইনিংসে এমন ধসের পেছনে কাজ করেন দুই অজি পেসার মিচেল স্টার্ক ও জস হ্যাজেলউড। এদিনের ৬ উইকেটের ৫টিই তুলে নেন তারা। শুরুটা করেন গতি দানব স্টার্ক। দারুণ খেলে হাফসেঞ্চুরি করা আজিঙ্কে রাহানেকে (৫২) এলবিডব্লিউ করেন তিনি। পরের বলে কারুন নায়ারকে শূন্য রানে সরাসরি বোল্ড। রাহানের সঙ্গে ১১৮ রানের জুটি গড়া চেতশ্বর পুজারাও হঠাৎই ছন্দ হারিয়ে ফেলেন। হ্যাজেলউডের বলে শিকার হন ‘নার্ভাস নাইনটির’। একই ওভারের পঞ্চম বলে রবিচন্দ্রন অশ্বিনকে সরাসরি বোল্ড করেন এ ডানহাতি বোলার। এক ওভার পরেই আবার তুলে নেন উমেশ যাদবকে। শেষ উইকেট জুটিতে ইশান্ত শর্মাকে নিয়ে কিছুটা লড়াই করেন উইকেটরক্ষক ঋদ্ধিমান শাহ। তবে প্রথম টেস্টের নায়ক স্পিনার স্টিভ ও’কিফ শন মার্শের ক্যাচে ফেরান ইশান্তকে। ঋদ্ধি ২০ রানে অপরাজিত থাকেন। দ্বিতীয় ইনিংসে মোট ৬ উইকেট তুলে নেন হ্যাজেলউড। দুটি করে উইকেট পান স্টার্ক ও ও’কিফ। এর আগে ভারত নিজেদের প্রথম ইনিংসে ১৮৯ রান করে। জবাবে অজিরা ২৭৬ রান করে ৮৭ রানের লিড পায়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ